১৭ আগস্ট ২০১৯

রিফাত হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করলেন মিন্নি

পাঁচ দিনের রিমান্ড শেষ হওয়ার আগেই আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নি পুলিশের কাছে স্বীকার করেছেন তিনি রিফাত শরীফ হত্যায় জড়িত রয়েছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে বিষয়টি জানান পুলিশ সুপার মো. মারুফ হোসেন।

বুধবার বিকেলে বরগুনা সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এ মামলার শুনানি শেষে মিন্নির পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন বিচারক মো. সিরাজুল ইসলাম গাজী।

এদিকে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে এ হত্যা মামলার ৩ নম্বর আসামি রিশান ফরাজীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মো. শাহজাহান হোসেনের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তবে কোথা থেকে রিশানকে গ্রেফতার করা হয়েছে তা তদন্তের স্বার্থে জানায়নি পুলিশ।

এখন পর্যন্ত প্রধান সাক্ষী মিন্নিসহ ১৫ জনকে এ মামলায় গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তবে প্রধান অভিযুক্ত নয়ন বন্ড পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হয়েছেন।

গ্রেফতার ১৫ জনের মধ্যে ১০ জন এ হত্যাকান্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন। এছাড়া চারজন রিমান্ডে রয়েছেন। রিশান ফরাজীকেও রিমান্ডে নেওয়ার জন্য আদালতে নেওয়া হয়েছে।


আরো সংবাদ