১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

লক্ষ্মীপুরে প্রতিপক্ষের হামলায় দিনমজুর নিহত, আটক ৬

লক্ষ্মীপুরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে। নিহত ব্যক্তির নাম বাবুল হোসেন (৫০)। এ ঘটনার প্রতিবাদে ৬ জনকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। রোববার রাতে সদর উপজেলার পূর্ব বিজয়নগর এলাকার কিরণের চায়ের দোকানের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে ঘটনায় জড়িতদের বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল করে স্থানীয়রা। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। নিহত বাবুল স্থানীয় মৃত শহিদ উল্ল্যার ছেলে। তিনি পেশায় দিনমজুর ছিলেন। ঘটনার পর নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে পুলিশ।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ জানায়, সদর উপজেলার বিজয়নগর গ্রামের নাপিতবাড়ির সোহেলের স্ত্রী লিপি আক্তারকে কুপ্রস্তাব দেয় পার্শ্ববর্তী এলাকার মৎস্য চাষী শহীদ। এতে রাজি না হওয়ায় লিপি ও সোহেলের ভাগিনা রাসেলকে জড়িয়ে কুৎসা রটায় শহীদ। বিষয়টি জানতে পেরে সোহেল ক্ষুব্ধ হয়ে কয়েকজন ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী নিয়ে শহীদের উপর অতর্কিত হামলা চালিয়ে মারধর করে। এতে বাধা দিলে সন্ত্রাসীরা বাবুলকেও মারধর করে। পরে স্থানীয় লোকজন গুরুতর আহত অবস্থায় তাদের উদ্ধার করে লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক বাবুলকে মৃত ঘোষণা করেন। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয় এলাকাবাসী সোহেলসহ ৬ সন্ত্রাসীকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে।

সদর থানার ওসি এ কে এম আজিজুর রহমান মিয়া জানান, দু’পক্ষের মারামারির ঘটনায় একজন নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় ৬ জনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনার তদন্ত করে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।


আরো সংবাদ