০৭ ডিসেম্বর ২০১৯

নোয়াখালীতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে অর্ধশতাধিক দোকান পুড়ে ছাই

নোয়াখালীর চৌমুহনীর স্টেশন মার্কেটে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। আগুনে মার্কেটের ২৩টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে সম্পূর্ণ ছাঁই হয়ে গেছে এবং আরো ২৭টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের আংশিক ক্ষতি হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে প্রায় ৩০ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে।

রোববার রাতে হঠাৎ অগ্নিকাণ্ড শুরু হয়। মুহুর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা চারদিকে ছড়িয়ে পড়ে। ঘটনার পর চৌমুহনী, মাইজদী, সোনাইমুড়ী ও ফেনীর ফায়ার সার্ভিসের চারটি ইউনিট প্রায় ২ ঘন্টা চেষ্টা করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ততক্ষণে একুশে ক্রোকারিজ, মেলা ক্রোকারিজ, পদ্মা হোটেল, আল আমিন ক্রোকারিজ, আলম স্টোর, ইসলাম ক্রোকারিজ, ভূঁইয়া ক্রোকারিজ, আঁখি ক্রোকারিজ নুর হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্ট, মোস্তফা ক্রোকরিজ, জেবি ক্রোকারিজ, এসবি ক্রোকারিজ, চায়না ক্রোকারিজ ও প্রাণ-আরএফএল শো’রুমসহ অর্ধশত ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে যায়।

অগ্নিকাণ্ডের সঠিক কারণ জানা যায়নি। এতে প্রায় ৩০ কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় ফায়ার সার্ভিসের দুই জনসহ ছয় জন আহত হয়েছেন।

ব্যবসায়ী সাহেদুর রহমান স্বপন বলেন, চলতি বছরে একই মার্কেটে এ পর্যন্ত চারবার ভয়াবহ আগুন লেগেছে। সম্প্রতি অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় এখন পর্যন্ত আগুনের ক্ষত না শুকাতেই আবারো অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা বেশ আলোচিত হচ্ছে।

ব্যবসায়ীরা জানান, আজকের এ আগুনের ঘটনায় অনেক ব্যবসায়ী সর্বস্ব হারিয়ে পথে বসেছে।

চৌমুহনী ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন কমান্ডার জহিরুল ইসলাম ভুইয়া বলেন, অগ্নিকাণ্ডের সঠিক কারণ এবং ক্ষতির পরিমাণ এখন ও নির্ধারণ করা সম্ভব হয়নি। বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে।


আরো সংবাদ