২১ আগস্ট ২০১৯

নিউজিল্যান্ডে বিপিএলের দুর্দান্ত পারফর্মেন্সের ঝলক দেখালো টাইগাররা

বিপিএলের পারফর্মেন্সের ঝলক ছিল বাংলাদেশের প্রস্তুতি ম্যাচে
১০৮ রানের দুর্দান্ত পার্টানারশিপ গড়েন মুশফিক ও মাহমুদুল্লাহ - সংগৃহিত

চলতি মাসের মাঝামাঝি সময়েই নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে নতুন মিশন শুরু হচ্ছে বাংলাদেশের। বিপিএলের ষষ্ঠ আসরের প্রথম কোয়ালিফায়ার শেষ হতেই জাতীয় দলের একটি গ্রুপ নিউজিল্যান্ডে উড়াল দিয়েছিল। এদের মধ্যে ছিলেন মুশফিকুর রহিম, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, মোস্তাফিজুর রহমান ও মেহেদী হাসান মিরাজসহ কয়েকজন। আসল মিশন শুরুর আগে নিউজিল্যান্ড একাদশের বিপক্ষে একটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে তারা। সবেমাত্র বিপিএল শেষ করে যাওয়ায় ব্যাটিং-বোলিংয়ে ভালোই ছিল তাদের পারফরমেন্স। তবে জয়টা ধরা দেয়নি। ২ উইকেটে হেরেছে বাংলাদেশ।

টস জিতে বাংলাদেশকে ব্যাট করতে পাঠায় নিউজিল্যান্ড। শুরুতেই সাজঘরে ফিরেন ওপেনার মুমিনুল হক। তবে টেস্ট স্কোয়াডে থাকা এই ব্যাটসম্যানকে দলে নেয়া হয়েছে অন্য ক্রিকেটাররা মাঠে পৌঁছাতে দেড়ি করায়। কিন্তু তিনি দলে অবদান রাখতে পারেননি।

এরপর তার পথ ধরেন আরো তিনজন। আট ওভারেই ফিরে যান লিটন দাস, সৌম্য সরকার ও মোহাম্মদ মিথুন।

টপ-অর্ডারের এই বেহাল অবস্থায় হাল ধরেন দুই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। ১০৮ রানের অনবদ্য একটি জুটি গড়েন তারা। অর্ধশত করেন দু’জনেই। ৬১ বলে ৬২ রান করেন মুশফিক। আর ৮৮ বলে ৭২ রান করেন মাহমুদুল্লাহ।

এই দু’জনের বিদায়ের পর সাব্বির রহমানের ৪১ বলের ৪০ রান এবং তরুণ নাঈম হাসানের ১৭ রান দলকে ২৪৭ রানের সংগ্রহ দেয়।

নিউজিল্যান্ডের ম্যাক পিক সর্বোচ্চ চারটি উইকেট শিকার করেন।

লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে শুরুটা ভালোই করেছিল নিউজিল্যান্ড। ওপেনিংয়ে জিত রাভেল ও অ্যান্দ্রে ফ্লেচার ১১৪ রানের দুর্দান্ত পার্টনারশিপ গড়েন। তাদের তালমিলে জয়টা খুব সহজই মনে হয়েছিল। কিন্তু বাংলাদেশের হাসিমুখের ঘাতক মোস্তাফিজুর রহমান কাজটি একটু কঠিনই করে দিয়েছেন। রাভেল যখন শতক থেকে আট রান দুরে, তখন সাজঘরে ফেরত পাঠান এই পেসার।

এরপর দুই স্পিনার মিরাজ ও মাহমুদুল্লাহ দুটি করে চারটি উইকেট শিকার করে ম্যাচটির উত্তেজনা বাড়িয়ে দেয়। মোস্তাফিজও দুটি উইকেট শিকার করেন। এছাড়া নাঈম ও সৌম্য একটি করে উইকেট নেন।

ম্যাচের উত্তেজনা বাড়লেও শেষ হাসিটা হাসে নিউজিল্যান্ডই। দুই উইকেটে প্রস্তুতি ম্যাচটি জিতে নেয় তারা। তবে বিপিএলে পারফর্মেন্সের ঝলক দেখা গেছে বাংলাদেশের খেলায়, যেটা খুবই ইতিবাচক। এখন আসল লড়াইয়ের পালা। সেখানে কে কী করতে পারেন, সেটাই এখন দেখার অপেক্ষায় বাংলাদেশের ক্রিকেটপ্রেমীরা।


আরো সংবাদ

ভয়াবহ গ্রেনেড হামলার ১৫তম বার্ষির্কী সীমান্তে পাকিস্তানি সেনাদের গুলিতে ৬ ভারতীয় সেনা নিহত শেখ হাসিনাকে আমন্ত্রণ মোদির বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে গ্রেনেড হামলার ১৫তম বার্ষিকী আজ বিএনপির লক্ষ্য সপ্তম কাউন্সিল নেতাকর্মীদের হতাশার বৃত্ত থেকে বের করে আনার চেষ্টা বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকসহ আরো ৫ জনের মৃত্যু দ্রুত অপরাধীদের শাস্তি নিশ্চিত না হওয়ায় ধর্ষণ বেড়েছে : হাইকোর্ট অরক্ষিত কমলাপুর রেলস্টেশন : খুনের বিষয় জানেন না ডিজি ট্রেনে আসমাকে হত্যার আগে ধর্ষণ করা হয় ডেঙ্গু নিয়ে চ্যালেঞ্জের মুখে মন্ত্রী-এমপিরা রিফাত হত্যা মিন্নিকে কেন জামিন দেয়া হবে না : হাইকোর্টের রুল এসপিকে ব্যাখ্যা দেয়ার ও তদন্ত কর্মকর্তাকে হাজির হওয়ার নির্দেশ একনেক সভায় প্রধানমন্ত্রীর জিজ্ঞাসা এক প্রকল্পের টাকা নষ্ট করা ইঞ্জিনিয়ার আরেক প্রকল্পে কিভাবে থাকে

সকল