১০ ডিসেম্বর ২০১৯

বিমানবন্দরের টয়লেট যেন স্বর্ণের খনি

চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের টয়লেটে পাওয়া গেল প্রায় ৪ কোটি টাকা মূল্যের ৭০টি স্বর্ণের বার।

শুক্রবার দুপুরে পরিত্যক্ত অবস্থায় ৮ কেজি ১৭০ গ্রাম ওজনের স্বর্ণের বারগুলো উদ্ধার করেছে বিমানবন্দরে দায়িত্বরত শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা।

শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ব্যবস্থাপক উইং কমান্ডার সারওয়ার-ই-জামান বলেন, দুপুরে ওমানের মাসকাট থেকে সালাম এয়ারের যাত্রীরা নামার পর বিমানবন্দরে তল্লাশি চালিয়ে টয়লেট থেকে পলিথিনে মোড়ানো ৮ কেজি ১৭০ গ্রাম ওজনের ৭০টি স্বর্ণের বার উদ্ধার করে শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা।

ধারণা করা হচ্ছে, তল্লাশির বিষয়টি আঁচ করতে পেরে পাচারকারীরা স্বর্ণের বারসহ পলিথিনটি টয়লেটে লুকিয়ে রেখে চলে যায়।

তিনি জানান, এ বিষয়ে বিস্তারিত এখনও জানা যায়নি। জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থা (এনএসআই) ও শুল্ক গোয়েন্দা অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা বিষয়টি তদন্ত করবেন। এ ঘটনায় কাস্টমস আইন অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

বিমানবন্দরের দ্বিতীয় তলার টয়লেটের কমোডের ভেতরে পলিথিনো মোড়ানো বারগুলো পাওয়া যায় বলে বিমানবন্দর কাস্টমসের উপ-পরিচালক রিয়াদুল ইসলাম জানান।

এর আগেও বিমানবন্দরে বেশ কয়েকটি স্বর্ণের চালান আটক হয়েছে। এই কারণে প্রতিটি ফ্লাইটের যাত্রীদের ওপর কড়া নজরদারি করা হয়। আর তাই ধরা পড়ে যাওয়ার ভয়ে সংশ্লিষ্ট পাচারকারী স্বর্ণের বারসহ পলিথিনটি টয়লেটে ফেলে যায় বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এর আগে ভোরে মদিনা থেকে আসা বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইটের ২৯ জন যাত্রীর কাছ থেকে ৭১৮৩ কার্টন বিভিন্ন ব্রান্ডের সিগারেট জব্দ করে বিমানবন্দর কাস্টমস।

একজন যাত্রী এক কার্টনের বেশি সিগারেট সঙ্গে আনতে পারেন না। একটি ফ্লাইটে এতজন যাত্রী কেন একসাথে এত সিগারেট আনল, সেটাও তদন্ত করে দেখার বিষয় বলেও জানান কাস্টমস কর্মকর্তারা। ইউএনবি।


আরো সংবাদ