সুরেন্দ্র কুমার সিনহা
সুরেন্দ্র কুমার সিনহা

‘সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের একজন হওয়ায় প্রধান বিচারপতিকে হেয় করা হচ্ছে’

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট নেতৃবৃন্দ অভিযোগ করেছেন, প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা দেশের সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের একজন হওয়ার কারণে তাকে হেয় করা হচ্ছে।

আজ সোমবার ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটি সম্প্রসারিত হলে এক সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করেন সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সংগঠনের মহাসচিব গোবিন্দ চন্দ্র প্রামানিক।

সুপ্রীম কোর্টের আপীল বিভাগের ষোড়শ সংশোধনীর রায়কে কেন্দ্র করে বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহাকে কুরুচিপূর্ণ, অশালীন, মর্যাদাহানিকর বক্তব্য, তাকে দেশত্যাগের হুমকী ও বিচারবিভাগের উপর নগ্ন হস্তক্ষেপের অভিযোগ এনে এর প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

এতে লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, আদালতের ওই রায় ও পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে এতে এমন কিছু নেই যা সরকারি দলকে ক্ষিপ্ত করে। রায়ে বঙ্গবন্ধুকে কোনোভাবেই খাটো করা হয়নি। তিনি তার বিচারক জীবনের প্রজ্ঞা, সততা ও নিষ্টার সাথে বিচার কাজ করেছেন যা সর্বমহলে প্রশংসিত হয়েছে। তিনি মেধা ও যোগ্যতার বদলেই প্রধান বিচারপতি হতে পেরেছেন। কারো দয়া-দক্ষিণে নয়। কাইকে ওভারটেক করে তাকে প্রধান বিচারপতি করা হয়নি।

তিনি বলেন, এদেশের সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের একজন হওয়ার কারণে তাকে হেয় করা হচ্ছে। কেননা অন্য একজন বিচারপতি তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা উঠিয়ে দিয়েছিলেন। এতে দেশের বেশিরভাগ মানুষ তাতে আহত হলেও তার বিরুদ্ধে এধরনের প্রতিক্রিয়া দেখা য়ায়নি।

সংবাদ সম্মেলন থেকে আশাবাদ ব্যক্ত করে বলা হয়, জনগণের প্রত্যাশা বিচার বিভাগের ওপর মানুষের আস্থা ও সম্মাান পুনঃ প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে যারা প্রধান বিচারপতির বিরুদ্ধে অশালীন ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করেছেন তারা নিজ উদ্যোগে স্বঃপ্রণোদিত হয়ে আদালতের পাশাপাশি দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চাইবেন।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.