গত ৪৬ বছরে ভোটাধিকারের নিশ্চয়তার বিধান সম্ভব হয়নি : মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম

নিজস্ব প্রতিবেদক

সিপিবির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম বলেছেন, পাকিস্তান আমল থেকেই বাংলাদেশের মানুষ অবাধ-নিরপেক্ষ নির্বাচনের দাবিতে সংগ্রাম করছেন। নিজের ভোট নিজে প্রয়োগ করার পরিস্থিতি নিশ্চিত করার লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন। বাংলাদেশে গত ৪৬ বছরে মানুষের ভোটাধিকারের নিশ্চয়তার বিধান করা সম্ভব হয়নি। তিনি বর্তমান আসনভিত্তিক সংসদ সদস্য নির্বাচনের পরিবর্তে ভোটের আনুপাতিক হারে প্রতিনিধি নির্বাচনের বিধান চালু করার দাবি জানান।
গতকাল জাতীয় প্রেস কাবের সামনে নির্বাচন ব্যবস্থার আমূল সংস্কারের দাবিতে সিপিবি-বাসদ ও গণতান্ত্রিক বাম মোর্চা আহূত দেশব্যাপী বিক্ষোভ সমাবেশের কেন্দ্রীয় কর্মসূচিতে সেলিম এ কথা বলেন।
সেলিম আরো বলেন, নির্বাচনে জামানতের পরিমাণ বাড়িয়ে দিয়ে দরিদ্র কিন্তু সৎ ও যোগ্য প্রার্থীদের নির্বাচনে অংশগ্রহণকে দুঃসাধ্য করে তোলার অপচেষ্টা সহ্য করা হবে না। তিনি রাজনৈতিক দলসমূহের নিবন্ধনের অগণতান্ত্রিক ও অসংবিধানিক পদ্ধতি বাতিলের দাবি জানান।
সেলিম বলেন, মূলত দু’টো সামরিক শাসনের আমলে নির্বাচনকে প্রহসনে পরিণত করা হয়েছিল। দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের ওপর জনগণের আস্থা নিঃশেষিত হয়ে গিয়েছিল। স্বৈরাচারী এরশাদ সরকারবিরোধী গণআন্দোলনের জয়ের মধ্য দিয়ে প্রাপ্ত ব্যবস্থায় নির্বাচন করা গেলেও ভোটাধিকার প্রয়োগের নিশ্চয়তা এখনো নিশ্চিত হয়নি। তিনি বলেন, লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড মানে আওয়ামী লীগ-বিএনপির জন্য নির্বাচনে সমান সুযোগ নয়। নির্বাচনে ছোট-বড় সব দলের জন্য সমান সুযোগ নিশ্চিত করা না গেলে তাকে ‘লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড’ বলা যাবে না।
ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য অধ্যাপক আবদুস সাত্তারের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আকবর খান, বাসদের কেন্দ্রীয় সদস্য বজলুর রশীদ ফিরোজ, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয় জুনায়েদ সাকি, সিপিবির সাধারণ সম্পাদক মো: শাহ আলম, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশরেফা মিশু, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদের (মাকর্সবাদী) কেন্দ্রীয় নেতা আ ক ম জহিরুল ইসলাম, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের আহ্বায়ক হামিদুল হক। সভা পরিচালনা করেন বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য জাহেদুল হক মিলু। সমাবেশ শেষে একটি মিছিল শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.