সৌন্দর্যবর্ধনে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের সাথে জিপিএইচের চুক্তি

‘জিপিএইচ দেশের অবকাঠামোগত উন্নয়নের সাথে সাথে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনসহ চট্টগ্রামের উন্নয়নের ক্ষেত্রে প্রথম অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করছে।’ গতকাল চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের কার্যালয়ে, পতেঙ্গা থানাধীন ১৫ নম্বর ঘাট থেকে বোট ক্লাব পর্যন্ত ২.৪৪ কিলোমিটার লম্বা ও ১০ ফুট প্রশস্ত শাহ আমানত বিমানবন্দর এলাকার মিড আইল্যান্ড বিউটিফিকেশন প্রকল্পের সৌন্দর্যবর্ধনের চুক্তি স্বাক্ষরকালে মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন উপরিউক্ত মন্তব্য করেন। চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের পক্ষে মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন এবং জিপিএইচ ইস্পাত লিমিটেডের পক্ষে ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম চুক্তি স্বাক্ষর করেন। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন জিপিএইচ ইস্পাতের অতিরিক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আলমাস শিমুল। মেয়র চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনকে সার্বিক সহযোগিতার জন্য জিপিএইচ ইস্পাত ম্যানেজমেন্টের সাধু উদ্যোগের প্রশংসা করেন। তিনি বলেন, এ সৌন্দর্যবর্ধনের ফলে দেশী-বিদেশী পর্যটক, বিনিয়োগকারী তথা সামগ্রিকভাবে গ্রিন সিটি ক্লিন সিটির ভাবমূর্তি উদ্ভাসিত হবে। চুক্তি স্বাক্ষরকালে জিপিএইচ ইস্পাতের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বলেন, জিপিএইচ ইস্পাত শুধু ব্যবসায় করছে না, তার সামাজিক দায়বদ্ধতার অংশ হিসেবে বর্তমান সরকারের উন্নয়নে সহযোগী ভূমিকা পালন করছে। এরই ধারাবাহিকতায় চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন মেয়রের আহ্বানে সাড়া দিয়ে গ্রিন সিটি রূপান্তরের লক্ষ্যে বিমানবন্দর এলাকার সৌন্দর্যবর্ধন করা হচ্ছে। জিপিএইচ ইস্পাতের অতিরিক্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ আলমাস শিমুল ধন্যবাদ জ্ঞাপন সূচক বক্তব্য রাখেন। রাস্তাটির সৌর্ন্দযবর্ধন কাজে সহযোগিতা করেছে আর্কিটেকচারাল ডিজাইনার সংস্থা পিটুপি ৩৬০। চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলরবৃন্দ, প্রধান নির্বাহী মো: শামসুদ্দোহা, চিফ ইঞ্জিনিয়ার লে. কর্নেল মহিউদ্দিন আহমেদ এবং জিপিএইচ ইস্পাতের নির্বাহী পরিচালক (এফ অ্যান্ড বিডি) কামরুল ইসলাম এফসিএ, পিটুপি’র নির্বাহী পরিচালক মোহাম্মদ সাজ্জাদ, চিফ মার্কেটিং অফিসার রুবাইয়াত আবেদীন, স্থপতি এমরান এম তৈয়ব উপস্থিত ছিলেন। বিজ্ঞপ্তি।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.