সিরিয়ায় রুশ-মার্কিন ভূমিকার সমালোচনা এরদোগানের

মিডলইস্ট আই

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়েব এরদোগান সিরিয়ায় রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক হস্তক্ষেপের সমালোচনা করে সোমবার বলেছেন, তারা সত্যিই যদি মনে করে যে, দেশটির সঙ্কটের সামরিক সমাধান সম্ভব নয়, তাহলে সেখান থেকে তাদের সেনাদের সরিয়ে নেয়া উচিত।
গত শনিবার রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভøাদিমির পুতিন ও মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এক যৌথ বিবৃতিতে সিরিয়ায় আইএসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ অব্যাহত রাখতে সম্মত হয়েছেন বলে উল্লেখ করে বলেছেন, দেশটিতে ছয় বছর ধরে চলা রক্তক্ষয়ী সংঘাতের কোনো সামরিক সমাধান সম্ভব নয়।
বিমানে ওঠার আগে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে এরদোগান বলেন, ‘আমি তাদের এই মন্তব্য বুঝতে পারছি না।’ তিনি বলেন, ‘সামরিক সমাধান যদি সম্ভব না হয় তাহলে যারা এ কথা বলছেন, তাদের সেনাদের সেখান থেকে প্রত্যাহার করে রাজনৈতিক সমাধান খুঁজতে হবে এবং নির্বাচন অনুষ্ঠানের বিষয় বিবেচনা করতে হবে। আমরা পুতিনের সাথে এ নিয়ে কথা বলবো।’
তিনি বলেন, ‘সিরিয়ায় সমস্যা সমাধানের জন্য রাজনৈতিক পদ্ধতি বেছে নেয়া উচিত, এজন্য পরীক্ষামূলক নির্বাচন দেয়া যেতে পারে। আমরা এই বিষয়টি নিয়ে পুতিনের সাথে আলোচনা করব।’
পরে রাশিয়ার দক্ষিণাঞ্চলের অবকাশকেন্দ্র সোচিতে পুতিনের সাথে চার ঘণ্টার বেশি সময় আলোচনার পর এরদোগান বলেন, তারা এই সংঘাতে রাজনৈতিক সমাধান নিয়ে আলোচনা করতে সম্মত হয়েছেন।
পুতিন বলেছেন, সিরিয়ার সমস্যা নিরসনে তারা তুরস্কের সাথে অব্যাহতভাবে চেষ্টা চালিয়ে যাবে এবং তাদের প্রচেষ্টায় ফল পাওয়া যাচ্ছে। সহিংসতার মাত্রা অনেক কমে এসেছে আন্তঃসিরীয় আলোচনার অনুকূল একটি পরিবেশ তৈরি হচ্ছে।
এরদোগানের আগের মন্তব্য নিয়ে দুই নেতা আলোচনা করেছেন কিনা জানতে চাইলে ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেস্কভ বলেন, অত্যন্ত জটিল একটি বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে যার সবকিছু প্রকাশ করা যাবে না। যুক্তরাষ্ট্র বলেছে, তারা ইরাক থেকে সেনা পুরোপুরি প্রত্যাহার করবে; কিন্তু সিরিয়া থেকে করবে না। সেখানকার পরিস্থিতি ভিন্ন রকম, ভিন্নভাবেই তা মোকাবেলা করতে হবে।
উল্লেখ্য, সিরিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের ১৩টি ও রাশিয়ার ৫টি ঘাঁটি রয়েছে।

 

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.