যশোরে উদ্ধার বাঘ-সিংহের ৪ শাবক বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্কে

শ্রীপুর (গাজীপুর) সংবাদদাতা

চোরাকারবারিরা সীমান্তপথে ভারতে পাচারের সময় সোমবার সকালে যশোরের চাঁচড়া এলাকা থেকে দু’টি চিতা (লেপার্ড) ও দু’টি সিংহ শাবক উদ্ধার করেছে পুলিশ। পরে রাতে উদ্ধার হওয়া শাবকগুলোকে গাজীপুরের শ্রীপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে স্থানান্তর করা হয়েছে। মঙ্গলবার ভোর ৪টায় ওই চিতা ও সিংহ শাবকগুলো আনা হয় পার্কে। পরে সাফারি পার্কের বন্যপ্রাণী উদ্ধার কেন্দ্রের নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে রাখা হয় শাবকগুলোকে। এখন নিয়মিত পরিচর্যার সাথে শাবকগুলোকে খাবার দেয়া হচ্ছে।
পার্কের প্রাণী পরিদর্শক আনিসুর রহমান জানান, মঙ্গলবার ভোরে একটি গাড়িতে করে দু’টি চিতা (লেপার্ড) শাবক ও দু’টি সিংহ শাবক নিয়ে আসেন খুলনা বিভাগীয় অঞ্চলের প্রাণী পরিদর্শক রাজু আহম্মেদ। এ সময় শাবকগুলো পার্কের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো: মোতালেব হোসেনের কাছে হস্তান্তর করা হয়। পরে ভোরেই আগে থেকে প্রস্তুত করা প্রাণী পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে নেয়া হয় শাবকগুলোকে। দু’টি আলাদা কক্ষের একটিতে দু’টি চিতা শাবক ও অন্যটিতে দু’টি সিংহ শাবককে রাখা হয়েছে। তিনি জানান, পার্কে নতুন দুই সিংহ শাবকসহ মোট ২১টি সিংহ হলো। এর মধ্যে সাদা (জিনগত) সিংহ রয়েছে চারটি আর অপর সতেরোটি বাদামি সিংহ। উদ্ধার হওয়া শাবকগুলোকে (বন্যপ্রাণী হাসপাতাল) নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। তিনি জানান, সিংহ শাবক দু’টির বয়স আড়াই মাস ও চিতা শাবক দু’টির দেড় মাস বয়স হয়েছে। লেপার্ড (চিতা) এক বছর বয়স হলেই দুটোকে আলাদা কক্ষে রাখতে হবে।
পার্কের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (রেঞ্জার) মো: মোতালেব হোসেন জানান, পার্কের হাসপাতালের নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে রেখে যতœ নেয়া হচ্ছে। পার্কে আগেও সিংহ শাবকের জন্ম হয়েছে। সেগুলো ভালো আছে। নতুন দু’টি সিংহ শাবককে উপযুক্ত সময়ে অবমুক্ত করা হবে। তবে আমাদের সাফারি পার্কে লেপার্ড (চিতা) বাঘ রাখার কোনো ব্যবস্থা নেই। চিতা শাবকগুলো প্রাপ্তবয়স্ক হওয়ার আগেই তাদের বসবাস উপযোগী পরিবেশ তৈরি করতে হবে। আমরা চাই এ সাফারি পার্কে চিতা বাঘ নতুন বাসিন্দা হোক আর দর্শনার্থীদের আকর্ষণে পরিণত হোক। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনায় পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।
উল্লেখ্য, গত সোমবার ভারতে পাচার করার আগে যশোরের চাঁচড়া চেকপোস্টের ফাঁড়ি পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ল্যান্ড ক্রুজার প্রাডো গাড়ি নং (ঢাকা মেট্রো-ঘ ১৩-২৭৯০) তে অভিযান চালিয়ে শাবকগুলো উদ্ধার করে। এ সময় পাচারের সাথে জড়িত থাকায় কামরুজ্জামান বাবু (৩১) ও রানা মিয়াকে (২৮) আটক করা হয়।

 

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.