বন্ধ ক্যাম্পাসে ছাত্রহলের রুমে প্রেমিক যুগল
বন্ধ ক্যাম্পাসে ছাত্রহলের রুমে প্রেমিক যুগল

বন্ধ ক্যাম্পাসে ছাত্রহলের রুমে প্রেমিক যুগল

রাবি সংবাদদাতা

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সোহরাওয়ার্দী হলের ১১৮ নম্বর রুমে এক প্রেমিক যুগলের অবস্থানের অভিযোগ পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। তার দুজনই বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষার্থী।

জানা গেছে, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ছেলের পোশাক পরিয়ে প্রহরীর চোখ ফাঁকি দিয়ে হলের ৪র্থ বর্ষের আবাসিক ছাত্র আবু বকর সিদ্দিক তালহা তার প্রেমিকাকে (২য় বর্ষ) রুমে নিয়ে যায়। এ সময় পাশের রুমের শিক্ষার্থীদের সন্দেহ হয়। পরে তারা তালহাকে রুমের দরজা খুলতে বলে। এ সময় ওই ছাত্রীকে তারা দেখতে পান। শিক্ষার্থীরা জিজ্ঞাসাবাদ করলে নিজেদের বিবাহিত বলে পরিচয় দেন তারা।

এদিকে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, তালহা শহীদ সোহরাওয়ার্দী হলের ১১৮ নং রুমের আবাসিক শিক্ষার্থী। তার সাথে ওই ছাত্রীর দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ক। তাদের দুজনের বাড়ি টাঙ্গাইল জেলায়। একই বিভাগে পড়াশুনা করেন তারা।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে অভিযুক্ত তালহা বলেন, 'আমরা ওই দিন সন্ধ্যায় বিয়ে করি। ঢাকা যাওয়ার উদ্দেশ্যে তাকে হলের বাইরে রেখে রুমে গেলে সে ভয় পেয়ে আমার রুমে এসে কিছুক্ষণ অবস্থান করে।'

ঘটনার সময় দায়িত্বে থাকা হল প্রহরী আপেল মাহমুদ জানান, ‘হলে কোনো মেয়ে প্রবেশ করেছে কি-না তা আমার জানা নেই। আবাসিক শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে ব্যাপারটা শুনেছি’।

সোহরাওয়ার্দী হলের প্রাধ্যক্ষ প্রফেসর ড. মো. আনিসুর রহমান বলেন, ‘আবাসিক হলে মেয়েদের অতিথি কক্ষ পর্যন্ত প্রবেশের অনুমতি রয়েছে। সেখানে নিজ রুমে ছাত্রীকে নিয়ে যাওয়া নিয়মবহির্ভূত। ক্যাম্পাস খোলার পর তদন্তসাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে’।

এ ব্যাপারে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর ড. লুৎফর রহমান বলেন, আমি বর্তমানে রাজশাহীর বাইরে আছি। ক্যাম্পাস খোলার পর এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.