মিটফোর্ড হাসপাতালে কারারক্ষীকে মারধর

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীর স্যার সলিমুল্লাহ মেডিক্যাল কলেজ মিটফোর্ড হাসপাতালে কর্মচারীদের হাতে লাঞ্ছিত হয়েছেন এক কারারক্ষী।

আজ বৃহস্পতিবার হাসপাতালের পাঁচতলায় তুচ্ছ ঘটনার জেরে কারারক্ষী হামিদুর রহমানকে মারধর করে দুই কর্মচারী। এ ঘটনায় প্রতিকার চেয়ে হাসপাতাল পরিচালকের বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন কারারক্ষী।

মারধরের শিকার কারারক্ষী হামিদুরের বরাত দিয়ে মিটফোর্ড সংবাদদাতা জানান, হাসপাতালের চারতলায় সার্জারি ওয়ার্ডে ভর্তি আছেন তার শ্বশুর। বাসা থেকে খাবার নিয়ে সকাল ১০টায় হাসপাতালে আসেন তিনি। লিফটে উঠলে চারতলায় না নামিয়ে পাঁচতলায় নামিয়ে দেয়া হয় তাকে। এনিয়ে হাসপাতালের এক কর্মচারীর সাথে তার তর্কাতর্কি হয়। এরই জেরে হাসপাতালের অফিস সহকারী সিরাজ ও ক্লিনার বাবুল মিলে তাকে এলোপাতাড়ি মারধর করে। এসময় কারারক্ষী নিজের পরিচয় দেন। এতে আরো ক্ষিপ্ত হয়ে হামলাকারীরা তার আইডি কার্ড নিয়ে নেয়। পরে কার্ডটি ভেঙে ফেলা হয়।

এ ব্যাপারে মিটফোর্ড হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল বঙ্কিম হালদার বলেন, বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। কারা এমন ঘটনা ঘটিয়েছে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, মিটফোর্ড হাসপাতালে প্রায়ই কতিপয় কর্মচারীর হাতে রোগী ও স্বজনদের মারধরের ঘটনা ঘটছে বলে অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে। তুচ্ছ ঘটনা নিয়ে গত ৬ জানুয়ারি এক রোগীকে রড দিয়ে পিটিয়ে পা ভেঙে দেয় কয়েক কর্মচারী। এমনকি ওই রোগীকে হাসপাতাল থেকে বের করে দেয়া হয়। অভিযোগ রয়েছে, কতিপয় কর্মচারী হাসপাতালে নতুন রোগী দেখলেই নিজেরা লাভবান হওয়ার জন্য তাদের অন্যত্র প্রাইভেট হাসপাতালে বাগিয়ে নেয়ার চেষ্টা করে। রোগীর স্বজনরা এসবের প্রতিবাদ করলে কর্মচারীরা তাদের লাঞ্ছিত করে বলে অভিযোগ রয়েছে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.