পায়রা সমুদ্রবন্দর : শেষ না হতেই ব্যয় বাড়ল দ্বিগুণ
পায়রা সমুদ্রবন্দর : শেষ না হতেই ব্যয় বাড়ল দ্বিগুণ

পায়রা সমুদ্রবন্দর : শেষ না হতেই ব্যয় বাড়ল দ্বিগুণ

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক

নির্ধারিত সময়ে শেষ করতে না পেরে এখন প্রকল্পের ব্যয় দ্বিগুণ বাড়ানো হলো। সময় বাড়ছে আরো দু'বছর। আর এটি হয়েছে পায়রা গভীর সমুদ্রবন্দরের অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্পে। চলতি বছরের জুনে শেষ করার কথা ছিল। সেটা এখন ২০২০ সালের জুন পর্যন্ত মেয়াদ বাড়ানো হলো। পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ণ এন্ড প্লাষ্টিক সার্জারি ইনষ্টিটিউট স্থাপন করা হচ্ছে ঢাকাতে। এতে ব্যয় হবে ৯১২ কোটি ৮০ লাখ টাকা।

প্রধানমন্ত্রী ও একনেক চেয়ারপার্সন শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে আজ শেরেবাংলা নগরস্থ এনইসি সম্মেলনকক্ষে অনুষ্ঠিত একনেক সভায় পায়রা বন্দর প্রকল্পটিসহ মোট ১৬টি প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়। সভা শেষে ব্রিফিংয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল প্রকল্পগুলোর ব্যাপারে সাংবাদিকদের জানান। মন্ত্রী জানান, ১৬ প্রকল্পে ব্যয় হবে ৯ হাজার ৬৮০ কোটি ৫ লাখ টাকা। এর মধ্যে ৯ হাজার ৫৯১ কোটি টাকা দেয়া হবে জিওবি খাত থেকে। বিদেশি কোনো অর্থায়ন নেই।

একনেকের তথ্যানুযায়ী, একহাজার ১২৮ কোটি ৪৩ লাখ টাকা ব্যয় এই সমুদ্র বন্দরটির উন্নয়ন প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়। নির্ধারিত সময়ে শেষ না হওয়ায় ব্যয় ২ হাজার কোটি টাকার বেশি বাড়িয়ে এখন তিন হাজার ৩৫০ কোটি ৫১ লাখ টাকা করা হয়েছে। এটি তৃতীয় সমুদ্র বন্দর। মেয়াদ শেষে এসে এখন জমি অধিগ্রহণের ব্যয় বৃদ্ধির কথা বলা হচ্ছে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.