নতুন প্রকাশ

যিয়ারতে বাইতুল্লাহ
মাওলানা রুহুল আমিন
সম্পাদনায় : আখতারুজ্জামান ফারুকী
প্রকাশক : মাকতাবায়ে ইবনে মাসউদ র:
বুকস অ্যান্ড কম্পিউটার কমপ্লেক্স
৩৮/৩, বাংলাবাজার, ঢাকা-১১০০
প্রকাশকাল : ফেব্রুয়ারি ২০১৮, মূল্য : ৫০০ টাকা।
সামর্থ্যবান মুমিন বান্দারা আল্লাহ তায়ালায় করুণা লাভের জন্য একমাত্র তাঁরই উদ্দেশ্যে হজের সফরে বের হন। হজ যেন ঈমানের নবায়ন। পৃথিবীর সব কিছু থেকে সম্পর্ক ছিন্ন করে শুধু আল্লাহমুখী হওয়ার এক অনুপম প্রক্রিয়া হচ্ছে হজ।
সারা বিশ্ব থেকে আগত সাদা, কালো কিংবা বাদামি মানুষের দেহজুড়ে থাকে পবিত্রতার প্রতীক সাদা পোশাক। ভিন্ন ভাষাভাষী মানুষের কণ্ঠে উচ্চারিত হয় একই ধ্বনি ‘লাব্বাইকা আল্লাহুমা লাব্বাইকা’। ‘আমি হাজির, হে আল্লাহ! আমি হাজির। কাবাকে ঘিরে মানুষের স্রোত যেন খরস্রোতা নদীর প্রবাহ। সবার মনে একই অনুভূতিÑ ‘হে আমাদের রব! আমাদেরকে দুনিয়া ও আখেরাতে কল্যাণ দাও এবং জাহান্নামের আগুন থেকে বাঁচাও।’ (সূরা বাকারা : ২০১)।
জিলহজ মাসের নির্দিষ্ট দিনগুলোতে মিনায় তাঁবুজীবন, আরাফাতের বিশাল প্রান্তরে অবস্থান, মুজদালিফায় রাতযাপন, আবার মিনায় প্রত্যাবর্তন, জামরাগুলোতে পাথর নিক্ষেপ, পশু কোরবানি, আবার কাবার তাওয়াফ ইত্যাদি কাজ শুধু আল্লাহর একান্ত জিকিরেই ব্যস্ত থাকা এবং গুনাহ ক্ষমা করার একান্ত নিবেদন।
সামর্থ্যবান মুমিনদের যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ফরজ কাজ সমাধা করা জরুরি। যে সামর্থ্যবান মুমিন এই ফরজ আদায় করল না, তার ব্যাপারে রাসূল সা: বলেনÑ শক্তি সামর্থ্য থাকার পরও যে হজ করল না, সে ইহুদি বা খ্রিষ্টান হয়ে মারা যাক; আমি তার জিম্মাদার নই। (বায়হাকি ৪/৩০৪)।
এ কথা অনস্বীকার্য, যারা হজ করার নিয়ত করেছেন তাদের জন্য এ গুরুত্বপূর্ণ আমল যথাযথভাবে আদায় করতে হলে যথাযথ দিকনির্দেশনা একান্ত প্রয়োজন। এ ক্ষেত্রে ‘যিয়ারতে বাইতুল্লাহ সচিত্র হজ উমরা’ গ্রন্থটি বিশেষ কাজে আসবে বলে মনে হয়।
২২৪ পৃষ্ঠার সম্পূর্ণ ১২০ গ্রাম আর্ট পেপারে চার রঙে সচিত্র বোর্ডবাঁধাই এ গ্রন্থটি প্রত্যেক হজযাত্রীর কাজে আসবে বলে আশা করা যায়।

হ মোহাম্মদ সালাউদ্দীন

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.