ব্রুনাই বাংলাদেশ হাইকমিশনের  নববর্ষ উদযাপন
ব্রুনাই বাংলাদেশ হাইকমিশনের নববর্ষ উদযাপন

ব্রুনাই বাংলাদেশ হাইকমিশনের নববর্ষ উদযাপন

নিজস্ব প্রতিবেদক

ব্রুনাই বাংলাদেশ হাইকমিশন অনাড়ম্বর পরিবেশ ও ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনায় বাংলা নববর্ষ উদযাপন করেছে। অনুষ্ঠানে বর্ণিল পোশাকে সজ্জিত শিশু-কিশোরদের উচ্ছ্বাসপূর্ণ অংশগ্রহণে হাইকমিশন প্রাঙ্গণ মুখর হয়ে ওঠে। ঢোল, একতারা, বাঁশি, মুখোশ, কুলা আর আবহমান বাংলার চিরায়ত ঐতিহ্যের নানা সামগ্রী অনুষ্ঠানে আগতদের মধ্যে নতুন প্রাণের সঞ্চার করে।

ব্রুনাই দারুসসালামে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এয়ার ভাইস মার্শাল (অব.) মাহমূদ হোসেন বৈশাখী মেলা ও বৈশাখী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন।
‘এক বাংলাদেশি এক ব্রুনাইয়ান’ স্লোগানকে ধারণ করে বাংলাদেশিদের পাশাপাশি বিদেশিরাও এই প্রাণের মেলায় স্বতঃস্ফূর্তভাবে যোগ দেন। মেলায় বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান বাংলার ঐতিহ্যবাহী পিঠা, ঝালমুড়ি, চটপটি, ফুচকা, কুটির শিল্প, দেশি পোশাকের স্টল সাজিয়ে বসে।

‘এসো হে বৈশাখ’ চিরকালীন এ গানের সম্মিলিত পরিবেশনের মধ্য দিয়ে সাংস্কৃতিক পর্ব শুরু করা হয়। সঙ্গীত নৃত্য, কবিতা আবৃত্তিসহ বিভিন্ন পরিবেশনার মাধ্যমে শিল্পীরা সবাইকে দিনভর মাতিয়ে রাখেন।

আমন্ত্রিত অতিথিদের মধ্যে ব্রুনাই দারুসসালাম বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি মোঃ মোস্তফা রেজা আলী, সাধারণ সম্পাদক মাহাবুবুর রহমান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ইকবাল কবির, বাহারুল আলম ও হামিদুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।   এছাড়াও ছিলেন নজরুল  ইসলাম ও সবুজ মির্জা প্রমূখ।   বঙ্গবন্ধু পরিষদের সহযোগিতায় বৈশাখী মেলার বিশেষ আকর্ষণ ‘বৈশাখী র‌্যাফেল ড্র’ অনুষ্ঠিত হয়। এতে ২০ টি আকর্ষনীয় পুরস্কার বিজয়ীদের মধ্যে তুলে দেয়া হয়।


অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে হাইকমিশনার এয়ার ভাইস মার্শাল (অব.) মাহমুদ হোসেন বলেন, নববর্ষ বাঙালির প্রাণের উৎসব। এ দিনে আমরা পুরাতন, জীর্ণ সরিয়ে সম্মুখ যাত্রার শুভ উদ্বোধন করি। সঙ্গীত নৃত্য-কবিতা আর মঙ্গলালোকের শুভ উচ্ছ্বাসের ভেতর দিয়ে আমরা সামনে এগিয়ে যাবার শপথ নেই। এসময় তিনি নতুন বছরে সরকার ও দেশের সর্বাঙ্গীন সাফল্য এবং সমৃদ্ধি কামনা করেন।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.