মুম্বাইয়ের ড্রেসিংরুম উপভোগ করছেন মুস্তাফিজ

ক্রীড়া ডেস্ক

২০১৬ সালের ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (আইপিএল) টি-২০ ক্রিকেটে অভিষেক হয় বাংলাদেশের কাটার মাস্টার মুস্তাফিজুর রহমানের। অভিষেকের পর সানরাইজার্স হায়দরাবাদে দু’বছর কাটানোর পর আইপিএলের চলতি আসরে নতুন দল পেয়েছেন ফিজ। এবারের আসরে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের হয়ে খেলছেন তিনি। প্রায় তিন সপ্তাহ হতে চলল, মুম্বাইয়ের সাথে আছেন এবং ইতোমধ্যে তিনটি ম্যাচ খেলেও ফেলেছেন ফিজ। এই তিন সপ্তাহের অভিজ্ঞতা থেকে মুম্বাই ড্রেসিংরুম বেশ উপভোগ করছেন মুস্তাফিজ। গতকাল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজে একটি ভিডিও বার্তায় মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে নিজের অভিজ্ঞতার কথা জানিয়েছেন বাংলাদেশের এই বাঁহাতি পেসার। ভিডিওতে মুস্তাফিজ বলেন, ‘এ বছর প্রথমবার মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে খেলছি। এর আগের দু’বছর আমি হায়দরাবাদে খেলেছি। এটা নতুন ড্রেসিং রুম, এখানে সিনিয়র অনেক খেলোয়াড় আছে। আমার বয়সীও অনেকে আছে। টিম কম্বিনেশন অনেক ভালো। কোচরা যথেষ্ট সাহায্য করছেন। খেলোয়াড়রাও অনেক সাহায্য করছে।’ হায়দরাবাদে মুস্তাফিজের কোচ ছিলেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক খেলোয়াড় টম মুডি। এবার মুম্বাইয়ে তার প্রধান কোচ শ্রীলঙ্কার সাবেক অধিনায়ক মাহেলা জয়াবর্ধনে। সাথে আরো আছেন নিউজিল্যান্ডের সাবেক পেসার শেন বন্ড। বোলিং কোচের দায়িত্ব পালন করছেন বন্ড। তাই জয়াবর্ধনে ও বন্ডের কাছে অনেক কিছুই শিখছেন বলে জানান ফিজ, ‘নতুন কোচের সাথে কাজ করলে সব সময় নতুন অনেক কিছু শেখা যায়। আমিও শেখার চেষ্টা করছি।’ মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের পেস আক্রমণে ভরসার প্রতীক মুস্তাফিজুর ও ভারতের জসপ্রিত বুমরাহ। প্রথম তিন ম্যাচ বিবেচনায় যখন তখন ব্রেক-থ্রু এনে দেয়ার পাশাপাশি ডেথ ওভারেও পারদর্শিতা দেখাচ্ছেন দু’জনে। বুমরাহর সাথে রসায়নটা বেশ ভালোই জমে উঠেছে তার। বুমরাহর সাথে বোলিং উপভোগ করছেন ফিজ, এমনটা অকপটে স্বীকার করলেন, ‘বুমরাহ এখন খুব ভালো বোলিং করছে। বিশেষ করে ডেথ ওভারে সে খুবই ভালো বোলিং করে। এখন দু’জন একসাথে বোলিং করতে পারছি, আমারও খুব ভালো লাগছে।’ মুস্তাফিজ-বুমরাহর দুর্দান্ত নৈপুণ্যের পরও টুর্নামেন্টে নিজেদের প্রথম তিন ম্যাচই হারে মুম্বাই। এখন পর্যন্ত ফিজ পাঁচটি ও বুমরাহ তিনটি উইকেট নিয়েছেন।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.