দাগনভূঞায় গৃহবধূকে গুলি করে হত্যা

ফেনী সংবাদদাতা

ফেনীর দাগনভূঞায় উপজেলার পূর্বচন্দ্রপুর ইউনিয়নের নয়নপুর গ্রামের গত মঙ্গলবার বিকেলে গৃহবধূকে গুলি করে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা।
পুলিশ ও নিহতের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গত আট মাস আগে সেনবাগ উপজেলার ছমির মুন্সী গ্রামের শামসুল হকের সাথে শারমিনের বিয়ে হয়। নিহতের স্বামী ঢাকায় একটি অটোমোবাইল গ্যারেজে মেকার হিসেবে কাজ করেন। গত কয়েকদিন আগে শারমিন বাবার বাড়িতে বেড়াতে আসেন।
নিহতের বোন ফরিদা আক্তার জানান, নয়নপুর গ্রামের আবদুল মজিদের ছেলে জাহাঙ্গীর আলম একজন ডেকোরেটর ব্যবসায়ী। দুই পরিবারের মধ্যে পারিবারিক সম্পর্ক ছিল। ঘটনার দিন বিকেল সাড়ে ৩টায় উভয়ে শারমিনদের ঘরে পাশাপাশি বসে টিভি দেখছিল। এ সময় ফরিদা পাশের কক্ষে নামাজ আদায় করছিলেন। কয়েক মিনিটের মধ্যে গুলির শব্দ ও চিৎকার শুনে ফরিদা ওই কক্ষে গিয়ে শারমিনের বুকে জাহাঙ্গীরকে পিস্তল ঠেকিয়ে রাখতে দেখেন। ঘটনাস্থলেই গৃহবধূ শারমিন আক্তার নিহত হন। এ সময় জাহাঙ্গীর অস্ত্র উঁচিয়ে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়।
বিকেলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
দাগনভূঞা থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, প্রাথমিকভাবে অসাবধানতাবশত ঘটনা বলে মনে হচ্ছে। তবে ঘাতক জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.