২০ অক্টোবর ২০১৮

‘বন্দুকের নল দিয়ে আন্দোলন দমানো যাবে না’

বন্দুকের নল দিয়ে আন্দোলন দমানো যাবে না। - নয়া দিগন্ত।

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলা মামলায় সাজা দেয়ার প্রতিবাদে বগুড়ায় দ্বিতীয় দিনের মতো বিক্ষোভ করেছে জেলা বিএনপি। বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টায় বগুড়া জেলা বিএনপির উদ্যোগে শহরের নবাববাড়ী রোডে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও বগুড়া জেলা সভাপতি ভিপি সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সমাবেশে বক্তব্য দেন ও উপস্থিত ছিলেন জেলা সাধারন সম্পাদক জয়নাল আবেদীন চাঁন, কেন্দ্রীয় নেতা মুক্তিযোদ্ধা মোঃ শোকরানা, আলী আজগর হেনা, লাভলী রহমান, ফজলুল বারী বেলাল, সাবেক এমপি অ্যাডভোকেট একেএম হাফিজুর রহমান ও মোস্তফা আলী মুকুল, এম আর ইসলাম স্বাধীন, অ্যাডভোকেট নাজমুল হুদা পপন, শাহ মেহেদী হাসান হিমু, আব্দুল ওয়াদুদ, এসএম রফিকুল ইসলাম, পরিমল চন্দ্র দাস, তৌহিদুল আলম মামুন, সহিদ উন নবী সালাম, আলী মুর রাজি তরুন, মাহমুদ শরীফ মিঠু, শাহাবুল আলম পিপলু, হাসানুজ্জামান পলাশ, খাদেমুল ইসলাম, মনিরুজ্জামান মনি, শফিকুল ইসলাম, তরুন প্রজন্ম দলের মোশফিকুল আলম মুরাদ ও রাসেল সরদার, ছাত্রদলের আবু হাসান, নূরে আলম সিদ্দিকী রিগ্যান প্রমুখ। সকাল থেকে একটানা বৃষ্টিপাত উপেক্ষা করে অনেক নেতাকর্মী এতে অংশ নেন।

সমাবেশে ভিপি সাইফুল বলেন, গ্রেনেড হামলা মামলার এজাহারে নাম ছিল না তারেক রহমানের। কিন্তু সরকার রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারনে তারেক রহমানকে আসামী করে জোর করে সাজা দিয়েছে। তাই দেশবাসী এ সাজা মানে না। এর প্রতিবাদে আন্দোলন হবে। সেই আন্দোলনে সবাই অংশ নিয়ে সরকারকে বিদায় করা হবে। বন্দুকের নল দিয়ে সেই আন্দোলন দমানো যাবে না। এ আন্দোলনে সবকিছু তছনছ হয়ে যাবে।

 

আরো দেখুন : বগুড়ায় নাশকতার পরিকল্পনার অভিযোগে যুবদলের ৪ নেতাকর্মী গ্রেফতার
বগুড়া অফিস

বগুড়ায় নাশকতার পরিকল্পনার অভিযোগে যুবদলের ৪ নেতাকর্মী গ্রেফতার করেছে ডিবি পুলিশ। তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ জানায়, শহরের তিনমাথা এলাকায় গত ৩ ফেব্রুয়ারী নাশকতার পরিকল্পনার অভিযোগে একটি মামলা হয়। সেই মামলার আসামী জেলা যুবদলের সহসভাপতি ফিরোজ হোসেন, যুবদল নেতা কবির হোসেন, মনির হোসেন ও রুবেলকে বুধবার রাত সাড়ে ৭টায় শহরের মালতিনগর বকসি বাজার এলাকা থেকে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ গ্রেফতার করেছে।

পুলিশ জানায়, শহরের তিনমাথা এলাকায় গত ৩ ফেব্রুয়ারী নাশকতার পরিকল্পনার অভিযোগে একটি মামলা হয়। সেই মামলার আসামী জেলা যুবদলের সহসভাপতি ফিরোজ হোসেন, যুবদল নেতা কবির হোসেন, মনির হোসেন ও রুবেলকে বুধবার রাত সাড়ে ৭টায় শহরের মালতিনগর বকসি বাজার এলাকা থেকে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ গ্রেফতার করেছে।

ডিবির ওসি নূর এ আলম সিদ্দিকী জানান, ৪ আসামী কে আদালতে চালান দেয়া হয়েছে।


আরো সংবাদ