১২ ডিসেম্বর ২০১৮

নেপালে প্রথমবারের মতো রোবট ওয়েটারের খাবার পরিবেশন

-

নেপালে প্রথমবারের মতো রেস্তোরাঁয় রোবট ওয়েটার খাবার পরিবেশন করেছে। ক্ষুধার্ত কাস্টমারদের টেবিলে গরম পুডিং পরিবেশন করে দেশটির প্রথম রোবট ওয়েটার জিনজার কাস্টমারদের উদ্দেশ্য করে বলছে, ‘খাবার উপভোগ করুন।’

নেপাল উঁচু পর্বতমালার জন্যই বিশেষ পরিচিত। প্রযুক্তির ক্ষেত্রে দেশটি অনেকটাই পিছিয়ে। কিন্তু একদল উদ্ভাবনী যুবক দেশটিতে প্রযুক্তি নিয়ে এসেছে।

স্থানীয় কোম্পানি পাইলা টেকনোলজি পাঁচ ফুট লম্বা রোবর জিনজার প্রস্তুত করেছে। রোবটটি ইংরেজি ও নেপালি উভয় ভাষা বুঝে।

জিনজার নামের এই মানবাকৃতির রোবটটি অ্যাপেল’স সিরি অথবা অ্যামাজোনের অ্যালেক্সার মতো কৌতুক করতে পারে।

নেপালের রান্নায় ব্যবহৃত অতি প্রয়োজনীয় উপকরণ আদার নামে রোবটির নামকরণ করা হয়েছে।

কাঠমান্ডুর নাউলো রেস্তোরাঁয় তিনটি ‘জিনজার’ কাজ করছে।

শহরটিতে তিন বছর আগে প্রচণ্ড শক্তিশালী ভূমিকম্পের ক্ষয়ক্ষতি এখনো পুরোপুরি কটিয়ে উঠতে পারেনি। ওই ভূমিকম্পে রাস্তাঘাটে বড় বড় ফাটল দেখা দেয়, বহু স্থানের রাস্তা ভেঙ্গে যায় এবং বহু অট্টালিকা ধসে পড়ে।

রোবট প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) বিনয় রাউত বলেন, ‘আমরা এখন পরীক্ষামূলকভাবে রোবটগুলোকে কাজে লাগিয়েছি। আমরা রোবটের সেবা সম্পর্কে কাস্টমারদের মতামতের অপেক্ষায় আছি।’

২৫ জন তরুণ প্রকৌশলী কয়েকমাস পরিশ্রম করে রোবটটি প্রস্তুত করেছে। বিনয় (২৭) তাদের মধ্যে সবচেয়ে সিনিয়র।

রেস্তোরাঁর কাস্টমার ৭৩ বছর বয়সী শালিকরাম শর্মা বলেন, ‘এটা সম্পূর্ণ একটি নতুন অভিজ্ঞতা।’

পরিবারের সাথে রাতের খাবার খেতে রেস্তোরাঁয় এসেছেন নীলম কুমার বিমালি। বললেন, ‘রোবট দেখতে খুবই সুন্দর। আমার বিশ্বাসই হচ্ছে না রোবটগুলো নেপালে তৈরি।’


আরো সংবাদ