১৬ জানুয়ারি ২০১৯

১২ হাজার ফুট উঁচুতে ওঠে গেল পাকিস্তানি ট্যাঙ্ক

পাকিস্তানি ট্যাঙ্ক - ছবি : সংগৃহীত

বিপুল উদ্দীপনা ও দৃঢ়প্রত্যয়ে অসম্ভব কাজ সম্ভব করা সবসময়ই পাকিস্তান সেনাবাহিনীর জন্য একটি হলমার্ক। সম্প্রতি এই বাহিনী কঠিন পরিস্থিতি আরেকটি আশ্চর্য কৃতিত্ব অর্জন করেছে।

এক অফিসারের চেষ্টায় একটি ট্যাঙ্ক খাইবার পাকতুনখাওয়ার জেলার খাইবার জেলায় ১২ হাজার ফুট উঁচুতে সফলভাবে মোতায়েন করা হয়েছে। এই এলাকাটি বিশ্বের অন্যতম বৈরী ভূখণ্ড হিসেবে পরিচিত।
আফগান সীমান্তের খাইবার জেলায় প্রাচীর নির্মাণের সময় পাকিস্তান সেনাবাহিনীর ক্যাপ্টেন সৈয়দ আমির হায়াত শাহের ওপর দায়িত্ব ছিল সন্ত্রাসীদের একটি গুরুত্বপূর্ণ আস্তানা অপসারণ করা। এসব সন্ত্রাসী বিভিন্ন উপায়ে পাকিস্তানি বাহিনীর ওপর হামলা চালাচ্ছিল।

সাগর পৃষ্ঠ থেকে ১২ ফুট উঁচুতে ওই স্থানে চরম প্রতিকূল অবস্থানের কারণে সেখানে কোনো ট্যাঙ্ক মোতায়েন করা ছিল অসম্ভব কাজ।

রুটটি ছিল অবিশ্বাস্য রকমের কঠিন। তবে ক্যাপ্টেন আমিরের চেষ্টায় ২০১৮ সালের ৬ জুলাই পাহাড়ের শীর্ষে মোতায়েন করা সম্ভব হয়। খাইবার এজেন্সির ওত উচ্চতায় ট্যাঙ্ক নেয়া একটি রেকর্ড।
গত এক বছর ধরে ট্যাঙ্কটি ওই পর্বতের নিচে ছিল। তবে নায়েক কালার খান ও ল্যান্স নায়েক রাজিকুল্লাহ শাহিদের সমন্বয়ে গঠিত একটি দল নিয়ে ওই অফিসার ৬ ঘণ্টার অসম্ভব বিবেচিত কাজটি সম্পন্ন করেন।
ট্যাঙ্কটি মোতায়েনের পর পাকিস্তান-আফগান সীমানে সন্ত্রাসদের আস্তানায় সরাসরি আঘাত হানা হয়। ওই অফিসার পোস্টটির নাম দেন সিবত-ই-হাসান পোস্ট।
দি নেশন


আরো সংবাদ