১৬ জানুয়ারি ২০১৯

সোফস এর আইটি সিকিউরিটি সেমিনার অনুষ্ঠিত

বিশ্বখ্যাত আইটি সিকিউরিটি কোম্পানি সোফস এর সমীক্ষায় দেখা যায়, ভারতের আইটি কর্মীদের ওপেনকৃত ফাইলের ৮৯% ম্যালওয়্যারকে নেটওয়ার্ক ফায়ারওয়াল রক্ষা করতে পারছেন না। ম্যালওয়্যার আক্রমণ বন্ধ করা বিগত বছরের তুলনায় চলতি বছরে আরো কঠিন হবে।

সোফস এর পণ্য ও সেবা প্রতিষ্ঠানের আইটি নিরাপত্তা নিয়ে সম্প্রতি ঢাকা ক্লাবের স্যামসন এইচ চৌধুরী মিলনায়তনে স্মার্ট ডাটা টেকনোলজি ও সোফস এর আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয় ‘সি দ্য ফিচার’ শীর্ষক সেমিনার।

সেমিনারে, ব্যাংক, বীমা, আর্থিক প্রতিষ্ঠান, বিশ্ববিদ্যালয় ও কর্পোরেট নেটওয়ার্ক ইউজারের দায়িত্বরত কর্মকর্তাদের সামনে সোফস ন্যাবস ২০১৯ এর সাইবার প্রেস রিপোর্ট উন্মুক্ত করেন সোফস এর রিজিওনাল হেড- বাংলাদেশের আবুল হাসনাত মহসিন।

মহসিন জানান, সোফস এর এক্সজি ফায়ারওয়াল ২০১৮ সনের এন্ডপয়েন্ট ও নেটওয়ার্ক নিরাপত্তা ক্যাটাগরিতে সিআরএন এর দৃষ্টিতে সেরা নির্বাচিত হয়েছে।

১৯৮৫ সালে যুক্তরাজ্যে প্রতিষ্ঠিত হওয়া সোফস পূর্নাঙ্গ সাইবার সিকিউরিটি সলিউশন কোম্পানি হিসেবে সারাবিশ্বে ১৫০টি দেশে ১০০ মিলিয়ন ব্যবহারকারীর সাইবার নিরাপত্তা দিয়ে আসছে।

স্মার্ট ডাটা টেকনোলজির সিইও মো. ফজলুর রহমান বলেন, সোফস এক্সজি ফায়ারওয়াল বিশ্বব্যাপী সোফস অনুমদিত প্রতিষ্ঠান থেকে সংগ্রহ করা সম্ভব । বর্তমানে বিনাম–ল্যে এর ট্রায়াল ভার্সনও ব্যবহার করা সম্ভব। এছাড়াও প্রতিষ্ঠানটি সম্পর্কে ও পণ্যের বিবরণী জানতে ভিজিট করতে পারেন (Sophos.com) সোফস ডটকম-এ।


আরো সংবাদ