১৪ নভেম্বর ২০১৯

ভিসি অপসারণের দাবিতে জাবিতে সমাবেশ

ভিসি অপসারণের দাবিতে জাবিতে সমাবেশ - নয়া দিগন্ত

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ফারজানা ইসলামকে অপসারণের দাবিতে পদযাত্রা-সমাবেশ করেছেন আন্দোলনকারী শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। মঙ্গলবার দুপুরে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারে পদযাত্রাটি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান অনুষদ থেকে শুরু হয়ে নতুন রেজিস্ট্রারের সামনে এসে শেষ হয় এবং এরপর সেখানে এক প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সমাবেশে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ এর মুখপাত্র অধ্যাপক রায়হান রাইন বলেন,‘ভিসি অধ্যাপক ফারজানা ইসলাম ইতোমধ্যেই আমাদের কাছে অবাঞ্ছিত। এই ভিসিকে অপসারণের দাবিতে আমরা রাষ্ট্রপতিকে চিঠি দিয়েছি। আমরা এখনো সেই চিঠির জবাব পাইনি। এদিকে ভিসিকে রক্ষার জন্য নতুন করে একটি সংগঠন (অন্যায়ের বিরুদ্ধে এবং উন্নয়নের পক্ষে জাহাঙ্গীরনগর) গড়ে তোলা হচ্ছে। এই সংগঠন করার উদ্দেশ্য হলো তারা যে অন্যায় করছে সেগুলোকে ঢেকে দেয়া। এরা সবাই ভিসিপন্থী হওয়ায় ভিসির দুর্নীতি ও স্বেচ্ছাচারকে সমর্থন দেবে এবং দিয়ে যাচ্ছে। রাষ্ট্র ভিসিকে অপসারণ না করলে জাবির প্রতিবাদী স্টেকহোল্ডাররা তাকে পদত্যাগ করাতে বাধ্য হবে।’

ছাত্র ইউনিয়ন জাবি সংসদের সদস্য রাকিবুল রনি বলেন,‘বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্যেকে জানে ভিসির স্বামী ও পুত্রের মধ্যস্থতায় উন্নয়ন প্রকল্পের টাকা লেনদেন হয়েছে। এ বিষয়টি ছাত্রলীগের একাধিক নেতা স্বীকারও করেছে। সালামির নামে কোটি কোটি টাকা লেনদেন করা হয়েছে। প্রকাশ্যে প্রমাণিত দুর্নীতিবাজ ভিসিকে অপসারণ করতে হবে। এজন্য আমরা সরকারের কাছে দাবি জানাচ্ছি, এরকম ভিসির হাত থেকে জাহাঙ্গীরনগরকে রক্ষা করুন।’

এদিকে দুর্নীতির বিরুদ্ধে বুধবার বিক্ষোভ মিছিল, ১৭ অক্টোবর সংহতি সমাবেশ এবং ১৯ অক্টোবর মশাল মিছিল হবে বলে জানিয়েছেন দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’এর মুখপাত্র অধ্যাপক রাইহান রাইন।

এছাড়াও মঙ্গলবার দুর্নীতির বিরুদ্ধে পদযাত্রা ও সমাবেশের আগে সুনামগঞ্জে শিশু তুহিন হত্যার তদন্ত সাপেক্ষে দৃষ্টান্তমূলক সাজার দাবিতে অমর একুশের সামনে মানববন্ধন করেছে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। এসময় তারা দেশে বিচারহীনতার সংস্কৃতির কারণে এধরণের হত্যাকাণ্ড ঘটছে বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন।


আরো সংবাদ