২৪ আগস্ট ২০১৯

মেহজাবিনের গল্পে আবারো স্বপ্ন দেখি, সাথে শ্যামল মাওলা

-

মেহজাবিন চৌধুরী, ছোটপর্দার এই সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় ও আলোচিত অভিনেত্রী। জনপ্রিয়তার শীর্ষে থেকেও বহুমাত্রিক চরিত্রে অভিনয় করে নিজেকে একজন ভার্সেটাইল অভিনেত্রীতে পরিণত করে নির্মাতাদের কাছে একজন নির্ভরযোগ্য অভিনেত্রীতে পরিণত করেছেন নিজেকে। মেহজাবিন তার অভিনীত প্রতিটি নাটক টেলিফিল্মেই নিজেকে ভাঙার চেষ্টা করেন কিংবা করছেন। যে কারণে তার অভিনীত নাটক একটির চেয়ে আরেকটি হয় অন্যরকম। এখন চরিত্রের দিকেই বেশি মনোযোগ তার। যে কারণে সাম্প্রতিক সময়ে মেহজাবিনের পর্দায় উপস্থিতিতে ভিন্নতা লক্ষ করা যায়। এবারই প্রথম মেহজাবিন তার নিজের গল্প ভাবনায় একটি নাটকে অভিনয় করেছেন। নাটকের নাম ‘আবারো স্বপ্ন দেখি’। এই নাটকে মেহজাবিন দুটো বিষয় তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। এক. পেশাগতভাবে প্রত্যেকেই পরিশ্রম অনুযায়ী ন্যায্য পারিশ্রমিক পান না। দুই. ঈদকে ঘিরে বিভিন্ন ধরনের পেশাজীবী মানুষের নানা ধরনের পরিকল্পনা থাকে, চাওয়া-পাওয়া থাকে। কিন্তু সব চাওয়া-পাওয়া কি পূরণ হয় মানুষের? এই দুটি বিষয়ই মেহজাবিন তার ‘আবারো স্বপ্ন দেখি’ নাটকে তুলে ধরার চেষ্টা করেছেন। নাটকটি নির্মাণ করেছেন মাহমুদুর রহমান হিমি। গতকাল নাটকটির নির্মাণকাজ শেষ হয়েছে। এতে প্রথমবারের মতো শ্যামল মাওলার সাথে অভিনয় করেছেন মেহজাবিন। মেহজাবিন চৌধুরী বলেন, ‘আগামী নিয়ে আমাদের অনেক স্বপ্ন থাকবে, পরিকল্পনা থাকবে। কিন্তু সেই স্বপ্ন যদি পূরণ না হয়, তাহলে হতাশ হয়ে গেলে চলবে না। ভেঙে পড়লে চলবে না। জীবনের নামই তো চ্যালেঞ্জ। তাই আবারো চ্যালেঞ্জ নিয়ে ঘুরে দাঁড়াতে হবে। কারণ মানুষ স্বপ্ন নিয়ে, আশা নিয়েই বাঁচে। এটা সত্যি যে, আমিও পরিশ্রম অনুযায়ী যথাযথ পারিশ্রমিক পাই না, কিন্তু অনেক সময় রাত ১২টার পরও কাজ করতে হয়। আবার আমার সীমাবদ্ধতার কারণে আমার সাথে যারা কাজ করে, তার পারিশ্রমিক যত পাওয়া দরকার ততটা দিতে পারি না। যদি তা না পারি, তবে তার যে সম্মানটা প্রাপ্তি, তা যেন অন্তত দিতে পারি সেই চেষ্টা আমাদের মধ্যে থাকতে হবে।’ মেহজাবিন জানান, এই নাটকে তিনি কাজের বুয়ার চরিত্রে অভিনয় করেছেন। শ্যামল মাওলা অভিনয় করেছেন ড্রাইভারের চরিত্রে। মেহজাবিন বলেন, ‘শ্যামল ভাই তার চরিত্রে শতভাগ পারফেক্ট অভিনয় করেছেন।’ শ্যামল বলেন, ‘আমি অবগত যে মেহজাবিন খুব ভালো অভিনয় করে। তার সাথে কাজ করতে গিয়ে তার সত্যতা উপলব্ধি করেছি। খুব ভালো একটি কাজ হয়েছে। আশা করি ভালোলাগবে দর্শকদের।’ হিমি জানান, আগামী ঈদে একটি স্যাটেলাইট চ্যানেলে এবং হিয়া এন্টারটেইনম্যান্টের ইউটিউব চ্যানেলে প্রচার হবে নাটকটি।

 


আরো সংবাদ