১৯ আগস্ট ২০১৯

ঈদে আরটিভিতে সাত পর্বের ম্যানেজ মকবুল

-

মকবুলের সবই ভালো শুধু একটা জিনিস ছাড়া। তার শুধু বাগড়া দেয়ার অভ্যাস। এলাকায় কোনো ইলেকশনের গন্ধ পেলেই দাঁড়িয়ে যাবে সে। হোক সেটা পাড়ার ক্লাবের নির্বাচন কিংবা এলাকার মেম্বার নির্বাচন। সব নির্বাচনে প্রার্থী হিসেবে মকবুল আছে। এমনকি অবিবাহিত মকবুল স্কুলের অভিভাবক নির্বাচনেও দাঁড়িয়ে যায়।
এভাবে সব নির্বাচনে দাঁড়িয়ে বাগড়া দেয়া মকবুলের স্বভাব এবং অনেকটা ব্যবসার মতো। এলাকার এমন কোনো নির্বাচন নেই, যে নির্বাচনে মকবুল দাঁড়ায় না। মূলত বাগড়া দিয়ে কিছু সুবিধা আদায়ের জন্য কাজটা করে সে।
ফলে বাগড়া দিলেও মকবুল তাকে ম্যানেজ করার রাস্তা খোলা রাখে। আর মকবুলকে ম্যানেজ করা কঠিন কিছু নয়। মূলত ম্যানেজ হওয়ার জন্যই সে বাগড়া বাধায়। প্রথমদিকে একটু গাই-গুঁই করে। নিজের দাম বাড়ায়। তারপর এক পর্যায়ে ম্যানেজ হয়ে যায়। বাগড়ার গুরুত্ব অনুযায়ী মকবুলকে খুশি করে দিলেই হাসিমুখে বসে যায় সে। মকবুলকে ম্যানেজ করে সবকিছু করতে হয় বলে এলাকায় তার নামই হয়ে যায় ম্যানেজ মকবুল।
মকবুলের ম্যানেজ ব্যবসা ভালোই চলছিল। কিন্তু এক পর্যায়ে এসে ঘুরে যায় পরিস্থিতি। যে মকবুলকে সবাই ম্যানেজ করতে ব্যস্ত হতো সেই মকবুলই উল্টো সবাইকে ম্যানেজ করতে উঠেপড়ে লাগে। কিন্তু কেন?
এ রকম মজার গল্পে আরটিভির জন্য নির্মিত হয়েছে ঈদের বিশেষ ধারাবাহিক নাটক ‘ম্যানেজ মকবুল’। সাত পর্বের এই নাটকটি লিখেছেন কথাসাহিত্যিক পলাশ মাহবুব। পরিচালনা করেছেন সাজ্জাদ সুমন। ম্যানেজ মকবুল নাটকে নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছেন সময়ের জনপ্রিয় অভিনেতা জাহিদ হাসান। এ ছাড়া আরো আছেন অপর্ণা ঘোষ, আরফান আহমেদ, কাজী উজ্জ্বল, হিমে হাফিজ, সুখীসহ অনেকে।
আরটিভি প্রযোজিত নাটক ‘ম্যানেজ মকবুল’ আরটিভিতে প্রচারিত হবে ঈদের দিন থেকে ঈদের সপ্তম দিন পর্যন্ত প্রতিদিন বেলা ২টার সময়।


আরো সংবাদ