১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সাফল্যের দুই দশক পেরিয়ে আলমগীর হোসেন

-

বাংলাদেশের সঙ্গীতাঙ্গনের কিংবদন্তি শিল্পী থেকে শুরু করে এই প্রজন্মের তরুণ জনপ্রিয় সঙ্গীতশিল্পীদের কাছে প্রিয় এক মিউজিসিয়ানের নাম আলমগীর হোসেন। দীর্ঘ দুই দশকের বেশি সময় ধরে তিনি বেশ সুনামের সঙ্গে ড্রামস বাজিয়ে আসছেন। ড্রামস বাজানোতে তার দক্ষতাই তাকে আজকের শক্ত একটি অবস্থানে নিয়ে এসেছে। রুনা লায়লা, সাবিনা ইয়াসমিন, সুবীর নন্দী, আইয়ুব বাচ্চু থেকে শুরু করে আজকের তরুণ অনেক সঙ্গীতশিল্পীর সাথেই আলমগীর হোসেন ড্রামস বাজিয়ে তাদের সঙ্গীতানুষ্ঠানকে সুরের মূর্ছনায় ভাসিয়ে তুলেছেন। ছোটবেলা থেকেই আলমগীর হোসেনের চোখে মুখে স্বপ্ন ছিল দেশের গুণী সঙ্গীতশিল্পীদের সঙ্গে একজন মিউজিসিয়ান হিসেবে কাজ করার। সেই স্বপ্নই একসময় পূর্ণ হলো। সময়ের ধারাবাহিকতায় আলমগীর হোসেন সঙ্গীতশিল্পীদের কাছে এক বিশ^াসের নাম। আলমগীর হোসেনের জন্ম নানাবাড়ি জয়পুর হাটে। তার বাবার বাড়ি পাবনা। ১৯৮৫ সাল থেকে বাবা আসির উদ্দিনের চাকরির সুবাদে ঢাকাতেই বসবাস করছেন। ১৯৯৭ সালে তিনি বিটিভিতে তবলা বাজাতেন। ১৯৯৮ সালে চার বন্ধু আলমগীর, সোহেল, টুটুল ও সুমন মিলে ‘ধূমকেতু’ নামের একটি ব্যান্ড দল গড়ে তুললেও ২০০০ সালে এসে তারা নিজেদের ব্যান্ড দলের পাশাপাশি আঁখি আলমগীর, মনির খানসহ আরো অনেক শিল্পীর সঙ্গে যন্ত্রসঙ্গীত শিল্পী হিসেবে কাজ শুরু করেন।

 


আরো সংবাদ