১৩ নভেম্বর ২০১৯

দেশব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচিতে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবি

সংবিধান লঙ্ঘন করে দেশ শাসন করছে সরকার : ফখরুল
নয়াপল্টনে বিএনপির সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখছেন ফখরুল ইসলাম আলমগীর : নয়া দিগন্ত -

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সুচিকিৎসা ও নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে গতকাল সারা দেশে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে বিএনপি ও এর অঙ্গ সংগঠন। এ সময় বক্তব্যে কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় নেতারা দেশের সর্বাধিক জনপ্রিয় নেত্রী খালেদা জিয়াকে ক্ষমতার অপব্যবহার করে মিথ্যা ও বানোয়াট মামলায় কারাগারে আটকে রাখার তীব্র নিন্দা জানান। নেতৃবৃন্দ যেকোনো মূল্যে তাকে মুক্ত করার আন্দোলনে ঝাঁপিয়ে পড়তে নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।
১২ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা : ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকার সচেতনভাবে সংবিধান লঙ্ঘন করে দেশ শাসন করছে বলে দাবি বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, সরকার গণতন্ত্রের সব প্রতিষ্ঠানগুলো ধ্বংস করেছে শুধু ভিন্ন লেবাসে বাকশাল শাসনব্যবস্থা কায়েম করতে। দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার। তিনি অবিলম্বে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সুচিকিৎসা এবং একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন বাতিল করে নতুন নির্বাচন দেয়ার দাবি জানান। এ সময় বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবিতে বিভিন্ন অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের পক্ষে ১২ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেন বিএনপি মহাসচিব। নয়া পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এই সংবাদ সম্মেলন হয়। এর আগে বিএনপি মহাসচিবের সভাপতিত্বে সকাল ১১টায় নয়াপল্টনের বিএনপি কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের কনফারেন্স হলে বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের এক যৌথসভা হয়। সভায় বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, কেন্দ্রীয় নেতা খায়রুল কবির খোকন, ফজলুল হক মিলন, শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী, মো: মুনির হোসেন, তাইফুল ইসলাম টিপু, বেলাল আহমেদ, যুবদলের সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, ড্যাবের সভাপতি অধ্যাপক ডা: হারুন আল রশিদ, মহাসচিব অধ্যাপক ডা: আবদুস সালাম, মহিলা দলের সুলতানা আহম্মেদ, ওলামা দলের শাহ মুহাম্মদ নেছারুল হক, নজরুল ইসলাম, তাঁতীদলের আবুল কালাম আজাদ, মজিবুর রহমান, মৎস্যজীবী দলের রফিকুল ইসলাম মাহাতাব, আবদুর রহিম, মুক্তিযোদ্ধা দলের সাদেক আহমেদ খান, আবদুল হালিম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের ঘোষিত কর্মসূচি হচ্ছেÑ ১৫ সেপ্টেম্বর মৎস্যজীবী দল, ১৬ সেপ্টেম্বর মুক্তিযোদ্ধা দল, ১৭ সেপ্টেম্বর তাঁতীদল, ১৮ সেপ্টেম্বর অ্যাসোসিয়েশন অব ইঞ্জিনিয়ার্স-বাংলাদেশ (এইবি), ১৯ সেপ্টেম্বর ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ড্যাব), ২০ সেপ্টেম্বর যুবদল (দেশব্যাপী) ২১ সেপ্টেম্বর ওলামা দল, ২২ সেপ্টেম্বর মহিলা দল (দেশব্যাপী) ২৪ সেপ্টেম্বর কৃষক দল, ২৫ সেপ্টেম্বর শ্রমিক দল, ২৭ সেপ্টেম্বর এগ্রিকালচারিস্ট অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (এ্যাব) এবং ২৮ সেপ্টেম্বর স্বেচ্ছাসেবক দলের উদ্যোগে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হবে।
খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রসঙ্গে মির্জা ফখরুল সংবাদ সম্মেলনে বলেন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া গভীর রাজনৈতিক ষড়যন্ত্রের শিকার। কারণ তাকে বন্দী করা হলে শাসকগোষ্ঠীর লুটপাট করতে সুবিধা। এ জন্যই তাকে কারাবন্দী করা হয়েছে। কেননা বেগম খালেদা জিয়া হলেন দেশের স্বাধীনতা সার্বভৌমত্ব রক্ষার প্রতীক। যিনি সারাটি জীবন গণতন্ত্রের জন্য দেশের মানুষের জন্য লড়াই করেছেন। নিজের জীবন বাজি রেখে কারো সাথে আপস না করে গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করে যাচ্ছেন। আজকে এসব কারণেই দেশনেত্রীকে জামিন দেয়া হচ্ছে না। তিনি রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার। সরকার সচেতনভাবে সংবিধান লঙ্ঘন করে দেশ শাসন করছে। একই ধরনের মামলায় অন্য অনেকে জামিন পেলেও কেবল দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে জামিন দেয়া হচ্ছে না।
তিনি বলেন, আজকে আমাদের ২৬ লাখ নেতাকর্মীর নামে এক লাখের বেশি মামলা। অসংখ্য নেতাকর্মী গুম। যার মধ্যে এমপি ও জনপ্রতিনিধিও আছেন। বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য থেকে শুরু করে এমন কোনো নেতাকর্মী নেই যার নামে ৩০-৪০টি মামলা নেই! তাহলে এটা কিসের ভিত্তিতে গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র? আজ গোটা দেশের সমাজব্যবস্থা বিভক্ত করা হয়েছে। এভাবে রাষ্ট্র পরিচালনা করে ফ্যাসিস্ট সরকার। আজ এতগুলো টিভি চ্যানেল কিন্তু জনগণের কথা কি তারা তুলে ধরতে পারছে? এক কথায় দেশে কোনো সরকার নেই। দেশ সমৃদ্ধির দিকে যাচ্ছে এবং সরকার উন্নয়ন উন্নয়ন বলে যে চিৎকার করছে, জিগির তুলছে সেটি আসলে রূপকথার গল্প।
খুলনা ব্যুরো জানায়, মহানগর ও জেলা বিএনপি গতকাল নগরীর কেডি ঘোষ রোডে দলীয় কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। খুলনা মহানগর বিএনপির সভাপতি নজরুল ইসলাম মঞ্জুর সভাপতিত্বে এবং মহানগর প্রচার সম্পাদক আসাদুজ্জামান মুরাদের পরিচালনায় মানববন্ধনে বক্তৃতা করেন শাহারুজ্জামান মোর্ত্তজা, আমির এজাজ খান, শেখ মোশাররফ হোসেন, জাফরউল্লাহ খান সাচ্চু, সিরাজুল ইসলাম, অ্যাডভোকেট এসআর ফারুক, স ম আবদুর রহমান, জাহিদুল ইসলাম, শেখ ইকবাল হোসেন, শাহজালাল বাবলু, জুলফিকার আলী জুলু, মনিরুজ্জামান মন্টু, শেখ আবদুর রশিদ, মোল্লা খাইরুল ইসলাম, সিরাজুল হক নান্নু, মাহাবুব কায়সার, নজরুল ইসলাম বাবু, কামরুজ্জামান টুকু, মেজবাউল আলম, এসএ রহমান বাবলু, অ্যাডভোকেট শহিদুল আলম, মেহেদী হাসান দীপু প্রমুখ।
বরিশাল ব্যুরো জানায়, বিএনপির কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব ও বরিশাল মহানগর সভাপতি অ্যাডভোকেট মজিবর রহমান সরোয়ার বলেছেন, ক্ষমতাসীনরা বুঝতে পেরেছে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দেয়া হলে দেশে গণতন্ত্র মুক্তি পাওয়ার সাথে সাথে অবৈধ মসনদ ভেঙে চুরমার হয়ে যাবে। গণতন্ত্র উদ্ধারে তার মুক্তির বিকল্প নেই। গতকাল বেলা ১১টায় শহরের সদর রোড এলাকার অশ্বিনী কুমার হল চত্বরে বরিশাল মহানগর আয়োজিত মানববন্ধন কর্মসূচিতে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। এ সময় আরো বক্তব্য রাখেন মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক জিয়া উদ্দিন সিকদার, সিনিয়র সহসভাপতি মনিরুজ্জামান খান ফারুক, অ্যাডভোকেট আলী হায়দার বাবুল, অ্যাডভোকেট মহসিন মন্টু, অ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ প্রমুখ। এর আগে সকাল সাড়ে ১০টায় অশ্বিনী কুমার হল চত্বরে একই দাবিতে বরিশাল দক্ষিণ জেলা বিএনপি ও উত্তর জেলা বিএনপি মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। দক্ষিণ জেলা বিএনপির সভাপতি এবায়েদুল হক চাঁনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন মেজবা উদ্দিন ফরহাদ, সৈয়দ রফিকুল ইসলাম লাবু, অ্যাডভোকেট পারভেজ আকন বিপ্লব।
রাজশাহী ব্যুরো জানায়, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও রাসিকের সাবেক মেয়র মিজানুর রহমান মিনু বলেছেন, আগামী ২৯ সেপ্টেম্বর রাজশাহী বিভাগীয় মহাসমাবেশ থেকে বর্তমান সরকারের পতনের রেড অ্যালার্ট জারি করা হবে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে মালোপাড়াস্থ দলীয় কার্যালয়ের সামনে মহানগর ও জেলা বিএনপির মানববন্ধন কর্মসূচিতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এতে সভাপতিত্ব করেন জাতীয় নির্বাহী কমিটির বন ও পরিবেশবিষয়ক সম্পাদক, রাজশাহী মহানগর বিএনপির সভাপতি ও সাবেক মেয়র মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবু সাঈদ চাঁদ, মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলন, বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সহিদুন্নাহার কাজী হেনা ও জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক সাইফুল ইসলাম মার্শাল।
নোয়াখালী সংবাদদাতা জানান, গতকাল নোয়াখালী প্রেস ক্লাবের সামনে বিএনপির জেলা সভাপতি গোলাম হায়দর বিএসসির সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন আবদুর রহমান,অ্যাডভোকেট আবদুর রহিম, আবু নাসের, ভিপি জসিম, ওমর ফারুক, শহীদুল ইসলাম কিরণ, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক নুরুল আমিন খান, ছাত্রদলের আজগর উদ্দিন দুখু প্রমুখ।
পটুয়াখালী সংবাদদাতা জানান, জেলা আইনজীবী সমিতি ভবনের সামনে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জেলা বারের সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট ওয়াহিদ সরোয়ার কালাম। নেতৃবৃন্দের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান খান, যুববিষয়ক সম্পাদক জেলা বারের সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট এ টি এম মোজাম্মেল হোসেন তপন, জেলা জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো: মোহসীন উদ্দিন, জেলা বিএনপির প্রচার সম্পাদক মো: মিজানুর রহমান, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি মশিউর রহমান মিলন প্রমুখ।
গাজীপুর সংবাদদাতা জানান, মহানগর বিএনপির সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা হাসান উদ্দিন সরকার বলেছেন, আওয়ামী লীগের রাজনীতি মিথ্যানির্ভর আর বিএনপির সত্যনির্ভর। বিএনপিকে ধ্বংস করার জন্য সরকার জিয়া পরিবারের বিরুদ্ধে নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। গতকাল সকালে জেলা শহরের রাজবাড়ি রোডস্থ দলের কার্যালয়ের সামনে গাজীপুর মহানগর ও জেলা বিএনপি আয়োজিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। মহানগরের যুগ্ম সম্পাদক আবদুস সালাম শামীম ও জেলা বিএনপির যুগ্ম সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সবুজের সঞ্চালনায় কর্মসূচিতে আরো বক্তব্য রাখেন গাজীপুর মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মো. সোহরাব উদ্দিন, জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক কাজী সাইয়েদুল আলম বাবুল, ডা. মাজহারুল আলম, ড. সহিদুজ্জামান, আহাম্মদ আলী রুশদী, শাহজাহান ফকির, সাখাওয়াত হোসেন সেলিম, পারভেজ আহাম্মেদ, বশির আহাম্মেদ বাচ্চু, সিটি কাউন্সিলর হাসান আজমল ভূইয়া, রাসেদুজ্জামান কিরণ প্রমুখ।
যশোর অফিস জানায়, গতকাল সকালে জেলা শহরের লালদিঘিপাড়স্থ দলীয় কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন করেন নেতাকর্মীরা। এ সময় বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অধ্যাপক নার্গিস বেগম, যুগ্ম-আহবায়ক দেলোয়ার হোসেন খোকন, আহবায়ক কমিটির সদস্য আবদুস সালাম আজাদ, সদর উপজেলা বিএনপির সভাপতি নুরুন্নবী, নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মুনির আহমেদ সিদ্দিকী বাচ্চু প্রমুখ।
ফরিদপুর সংবাদদাতা জানান, শহরের আলিমুজ্জামান ব্রিজসংলগ্ন রকিবউদ্দিন পৌর বিপণিবিতানের সামনে গতকাল বিকালে কৃষক দল, তাঁতীদল ও মৎস্যজীবী দলের উদ্যোগে মানববন্ধনে জেলা মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক আজম খানের সভাপতিত্বে বক্তব্য দেন জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক রশিদুল ইসলাম লিটন, সাবেক সহ-সভাপতি নেতা মাজেদ মিয়া, ইঞ্জিনিয়ার খায়রুল আনাম, মাসুম দেওয়ান, জেলা তাঁতীদলের আহ্বায়ক মামুনুর রশীদ, জেলা মৎস্যজীবী দলের যুগ্ম আহ্বায়ক বিএম রায়হান, জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক তানজিমুল হাসান কায়েস, জেলা কৃষক দলের যুগ্ম সম্পাদক শাহিন হক প্রমুখ। এর আগে সকাল ১১টার দিকে শহরের আলিপুরে গোলপুকুর মার্কেটের সামনে শহর বিএনপির উদ্যোগে মানববন্ধন ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।
হবিগঞ্জ সংবাদদাতা জানান, গতকাল বেলা ১১টায় শহরের শায়েস্তানগর এলাকায় অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বিএনপির কেন্দ্রীয় সমবায়বিষয়ক সম্পাদক ও হবিগঞ্জ পৌরসভার সাবেক মেয়র জি কে গউছ। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক মিজানুর রহমান চৌধুরী, অ্যাডভোকেট নুরুল ইসলাম, হাজী এনামুল হক, জেলা শ্রমিকদলের সাধারণ সম্পাদক এস এম বজলুর রহমান, এমজি মুহিত, সদর উপজেলা বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক আজিজুর রহমান কাজল, জেলা কৃষকদলের আহ্বায়ক মাহবুবুর রহমান আউয়াল, জেলা যুবদলের সভাপতি মিয়া মো: ইলিয়াছ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জহিরুল হক শরীফ, জেলা জাসাসের সভাপতি মিজানুর রহমান চৌধুরী, জেলা মৎস্যজীবী দলের সভাপতি অ্যাডভোকেট মুদ্দত আহমেদ, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি এমদাদুল হক ইমরান প্রমুখ।
টাঙ্গাইল সংবাদদাতা জানান, গতকাল সকালে টাঙ্গাইল শহরে শহীদ মিনারের সামনে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সভাপতি কৃষিবিদ সামছুল আলম তোফা, সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট ফরহাদ ইকবাল, সহ-সভাপতি আতাউর রহমান জিন্নাহ, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আবুল কাসেম ও জেলা যুবদলের আহ্বায়ক আশরাফ পাহেলী প্রমুখ।
ঝালকাঠি সংবাদদাতা জানান, শহরের আমতলার মোড় গলিতে দলীয় কার্যালয়ের পাশে গতকাল সকালে মানববন্ধন কর্মসূচিতে বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা অংশ নেন। প্রধান বক্তা ছিলেন জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মেহেদী হাসান খান বাপ্পি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সহসভাপতি নুরুল আলম গিয়াস, সদর উপজেলা বিএনপির সভাপতি সরদার এনামুল হক এলিন, শহর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আনিসুর রহমান তাপু, জেলা মহিলা দলের সভানেত্রী মাহফুজা জুয়েল, জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক রবিউল হোসেন তুহিন, সহসভাপতি কামাল মল্লিক, স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক সরদার সাফায়েত হোসেন প্রমুখ।
মুন্সীগঞ্জ সংবাদদাতা জানান, গতকাল সকাল ১১টায় সদর উপজেলার মোক্তারপুর পুরাতন ফেরিঘাট এলাকায় কর্মসূচি পালন করা হয়। এতে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সভাপতি আবদুল হাই। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সিনিয়র সহ-সভাপতি আতাউর হোসেন বাবুল, সদর উপজেলা বিএনপির সভাপতি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন, জেলা যুবদল সভাপতি মো: সুলতান আহম্মেদ, জেলা শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক আবদুল আজিম স্বপন, জেলা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুদ রানা, টঙ্গিবাড়ী উপজেলা বিএনপি সভাপতি মনিরুল ইসলাম খান পল্টন, জেলা ছাত্রদল সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম তুষার, সদর থানা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক সোহাগ হাসান প্রমুখ।
গাইবান্ধা সংবাদদাতা জানান, জেলা বিএনপির উদ্যোগে দলীয় কার্যালয়ের সামনে কর্মসূচি পালিত হয়। জেলা বিএনপির সভাপতি অধ্যাপক ডা: মইনুল হাসান সাদিকের সভাপতিত্বে মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মাহামুদুন্নবী টিটুল, সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আবদুল মান্নান সরকার, সহ-সভাপতি শহিদুজ্জামান শহীদ, সাদুল্যাপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি শামছুল ইসলাম শামছুল, সদর থানা বিএনপির আহবায়ক খন্দকার ওমর ফারুক সেলু, জেলা বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আনিছুর রহমান নাদিম, পলাশবাড়ী উপজেলা বিএনপির সদস্য সচিব আবু আলা মওদুদ প্রমুখ।
নীলফামারী সংবাদদাতা জানান, পুলিশি বাধার মুখে সড়কে দাঁড়াতে পারেননি নীলফামারীর বিএনপি নেতাকর্মীরা। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে গতকাল সকাল সাড়ে ১১টার দিকে লিফলেট বিতরণ এবং মানববন্ধনের জন্য পৌর মার্কেটস্থ দলীয় কার্যালয়ে জড়ো হচ্ছিলেন নেতাকর্মীরা। লিফলেট বিতরণ শুরু হলে প্রথমে বাধা দেয় পুলিশ, পরে কার্যালয়ের সামনের সড়কে মানববন্ধন করতে চাইলে সেখানেও বাধা দেয়া হয়। সেখানে ধাক্কাধাক্কি হয় পুলিশের সাথে বিএনপি নেতাকর্মীদের। পরে পুলিশের বেষ্টনীর মধ্যে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আলমগীর সরকার, সদস্য সচিব জহুরুল আলম, সদর উপজেলা সদস্য সচিব আখতারুজ্জামান জুয়েল, শহর কমিটির সদস্য সচিব মাসুদ চৌধুরী ও জেলা ছাত্রদলের সদস্য সচিব মারুফ পারভেজ প্রিন্স।


আরো সংবাদ