১৭ অক্টোবর ২০১৯
ভারতের সাথে অসম চুক্তি বাতিলের দাবি

প্রগতিশীল জোটের কর্মসূচিতে পুলিশের বাধা

-

ভারতের সাথে অসম চুক্তি বাতিল দাবিসহ মোট তিন দাবিতে পালিত প্রগতিশীল জোটের কর্মসূচিতে বাধা দিয়েছে পুলিশ। এ সময় পুলিশের সাথে সংঘর্ষে এক ছাত্রী আহত হয়েছেন। তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। গতকাল বুধবার দুপুরে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ঘেরাও কর্মসূচি পালনকালে এ ঘটনা ঘটে।
জানা যায়, গতকাল বুধবার দুপুরে জোটের নেতাকর্মীরা মিছিল নিয়ে সচিবালয় এলাকায় গেলে পুলিশ বাধা দেয়। এ সময় শিক্ষার্থীরা ঘেরাও কর্মসূচি পালন করতে না পেরে রাস্তায় অবস্থান নেন। পরে পুলিশের সাথে ব্যারিকেড নিয়ে ধস্তাধস্তিতে এক নেত্রী আহত হন। আহত শাহিন আক্তার সুমি সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের ঢাকা নগর শাখার অর্থ সম্পাদক। তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়।
এ বিষয়টি নিশ্চিত করে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের ঢাবি শাখার সভাপতি সালমান সিদ্দিকী বলেন, তিন দাবিতে আমাদের পালিত স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ঘেরাও কর্মসূচি পালনকালে পুলিশ আমাদের বাধা দেয়। এ সময় ব্যারিকেড দিয়ে পুলিশ আমাদের গতিরোধ করে। পরে পুলিশের সাথে ধস্তাধস্তি হয়। এ সময় আমাদের একজন আহত হয়। পরে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়।
এর আগে দুপুরে তিন দফা দাবিতে কর্মসূচি পালন করে প্রগতিশীল ছাত্র জোটের নেতাকর্মীরা। তাদের দাবিগুলো হলো- ভারতের সাথে সব অসম চুক্তি বাতিল, আবরার হত্যায় জড়িতদের বিচারের আওতায় আনা এবং ক্যাম্পাসগুলোতে গণরুম, গেস্টরুম বন্ধ করা।
এর আগে, মধুর ক্যান্টিন থেকে প্রগতিশীল ছাত্রজোটের একটি বিক্ষোভ মিছিল ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। এতে সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দীন প্রিন্স, ঢাবি শাখার সাধার সাধারণ সম্পাদক সুজন, ছাত্রমৈত্রীর ইকবাল কবীর প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
এ সময় তারা আবরার ফাহাদ হত্যাকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি করেন। এ ছাড়া দেশের সব বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের গণরুম, গেস্টরুমের নামে নির্যাতন বন্ধ করার পাশাপাশি ভারতের সাথে সম্প্রতি সম্পাদিত সব চুক্তি বাতিল করার আহ্বান জানান।


আরো সংবাদ