১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯

টাঙ্গাইলে জামায়াতের ৩৬ নেতাকর্মী গ্রেফতার ১৮ জনের রিমান্ড

-

টাঙ্গাইলের গোপালপুর থেকে নাশকতার অভিযোগে জামায়াতে ইসলামীর ৩৬ জন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধবার তাদের আদালতে তোলা হয়। তাদের মধ্যে ১৮ জনের বিরুদ্ধে দুই দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন আদালত। অপর ১৮ জনকে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। গত মঙ্গলবার সকালে গোপালপুর উপজেলার নলীন বাজারে যমুনা নদীর ঘাট থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।
পুলিশ তাদের বিরুদ্ধে নাশকতার অভিযোগ আনলেও জামায়াতের পক্ষ থেকে বলা হয়েছেÑ এ অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করে তাদের সাজানো মামলায় জড়ানো হয়েছে।
আদালত সূত্র জানায়, গতকাল বুধবার বিকেলে গ্রেফতারকৃতদের টাঙ্গাইল আদালতে তোলা হয়। পুলিশ তাদের মধ্যে গোপালপুর পৌর জামায়াতের আমির গোলাম মোস্তফা রঞ্জুসহ ১৮ জনের বিরুদ্ধে পাঁচ দিন করে রিমান্ড চাইলে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শামসুল আলম দুই দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন এবং অপর ১৮ জনকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন। তাদের গ্রেফতারের পর গোপালপুর থানার এসআই আব্দুল মালেক খান বাদি হয়ে ৫৯ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরো ১০-১৫ জনের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা দায়ের করেন।
বুধবার দুপুরে টাঙ্গাইলের পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায় এক সংবাদ সম্মেলনে জানান, দেশের গুরুত্বপূর্ণ বঙ্গবন্ধু সেতুতে নাশকতা কর্মকাণ্ডের পরিকল্পনা ছিল গ্রেফতারকৃত জামায়াত-শিবিরের নেতাকর্মীদের। নৌভ্রমণের নামে এ জন্যই তারা একত্রিত হয়েছিল। তাদের কাছ থেকে জিহাদি বই ও লিফলেট উদ্ধার করা হয়েছে।

এ বিষয়ে জেলা জামায়াতের আমির আহসান হাবীব মাসুদ বলেন, তারা সেখানে একত্রিত হয়েছিলেন পবিত্র আশুরা উপলক্ষে দোয়া ও নৌকাভ্রমণের জন্য। সেখান থেকে সম্পূর্ণ অন্যায়ভাবে মিথ্যা অভিযোগে তাদের গ্রেফতার করা হয়েছে। তিনি গ্রেফতার ও রিমান্ডের তীব্র নিন্দা জানিয়ে সবার নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করেন।

 


আরো সংবাদ