২২ নভেম্বর ২০১৯

মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিল ১৬ নভেম্বর ত্যাগী নেতাদের সভাপতি-সম্পাদক চায় তৃণমূল

-

দীর্ঘ সাত বছর পর আগামী ১৬ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হচ্ছে মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন। সম্মেলনকে ঘিরে নেতাকর্মীদের মাঝে উৎসবের আমেজ ছড়িয়ে পড়েছে।
গত ২৪ অক্টোবর থেকে শুরু হয়ে তৃণমূল পর্যায়ের নেতা নির্বাচন প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে গত ৪ নভেম্বর। এবারের কাউন্সিলে মাঠের পরীক্ষিত অভিজ্ঞ নেতাদের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক হিসেবে চান তৃণমূল নেতাকর্মীরা। তবে প্রত্যক্ষ ভোটে নয়, সম্ভাব্য প্রার্থীদের মধ্যে সমঝোতার ভিত্তিতে হতে পারে এবারকার উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি-সম্পাদক নির্বাচন প্রক্রিয়া।
এর কারণ হিসেবে উপজেলার করেরহাট ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক মো: শেখ সেলিম বলেন, ‘আমাদের নেতা ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন (মিরসরাইয়ের সংসদ সদস্য) বিএনপি-জামায়াতের নানা ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করেছেন। আগামীতেও এ ধরনের সঙ্কট আসতে পারে। তাই মাঠের আন্দোলন সংগ্রাম ও রাজনীতিতে অভিজ্ঞ ও ত্যাগী নেতা নির্বাচনের বিকল্প নেই।’
এ দিকে ২০১২ সালে অনুষ্ঠিত সর্বশেষ মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিল প্রত্যক্ষ ভোটে অনুষ্ঠিত হলেও এবারকার নেতা নির্বাচন প্রক্রিয়া সম্পন্ন হতে পারে সম্ভাব্য প্রার্থীদের সমঝোতার ভিত্তিতে। এমন আভাস মিলেছে শেষ হওয়া ইউনিয়ন ও পৌর আওয়ামী লীগের নেতা নির্বাচন প্রক্রিয়া। এখানকার ১৬ ইউনিয়ন ও দুই পৌরসভায় দলটির কমিটি গঠন প্রক্রিয়া ছিল সমঝোতার ভিত্তিতে।
এ দিকে আগামী ১৬ নভেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া আওয়ামী লীগের কাউন্সিল ঘিরে মাঠের প্রচারে ব্যস্ত সময় পার করছেন সম্ভাব্য প্রার্থীরা। এদের মধ্যে সভাপতি পদে প্রার্থিতা ঘোষণা করেছেন চট্টগ্রাম উত্তরজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নুরুল আনোয়ার বাহার চৌধুরী, মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী, যুগ্ম সম্পাদক নুরুল মোস্তফা ও সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান ফেরদৌস হোসেন আরিফ। সাধারণ সম্পাদক পদের জন্য প্রার্থিতা ঘোষণা করেছেন মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এনায়েত হোসেন নয়ন, ধুম ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এ কে এম জাহাঙ্গীর ভূঁইয়া, দুর্গাপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিয়ান বিপ্লব।
সভাপতি প্রার্থী চট্টগ্রাম উত্তরজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নুরুল আনোয়ার বাহার চৌধুরী বলেন, ‘ছাত্র রাজনীতি থেকে শুরু করে অদ্যাবধি আওয়ামী রাজনীতির সাথে যুক্ত আছি। যেহেতু আমি মিরসরাই আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে দীর্ঘকাল বিচরণ করছি তাই এবার দলের উপজেলা সভাপতি পদে প্রার্থী হয়েছি।
সভাপতি প্রার্থী মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী বলেন, ‘দীর্ঘ সময় সততা, নিষ্ঠা ও বিচক্ষণতার সাথে দলের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেছি। আমার দায়িত্ব পালনকালে দশম ও একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন দলের পক্ষে সফলভাবে পরিচালনা করতে সক্ষম হয়েছি। উভয় নির্বাচনে আমাদের দলের প্রার্থী আমাদের অভিভাবক জননন্দিত নেতা ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। আগামীতে দলের দায়িত্ব পেলে দলকে আরো সুসংগঠিত করার প্রয়াস অব্যাহত রাখব।’
দেখা গেছে, মিরসরাইয়ের প্রত্যন্ত অঞ্চলে আওয়ামী লীগের সম্ভাব্য সভাপতি সাধারণ সম্পাদক প্রার্থীরা বিলবোর্ড, পোস্টার, লিফলেটসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নানা ধর্মী প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছেন। এদের মধ্যে সমগ্র উপজেলায় নজর কাটছে সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী এনায়েত হোসেন নয়ন ও এ কে এম জাহাঙ্গীর ভূঁইয়ার প্রচারণা। তারা উভয়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের দুই ধারে বড় বড় বিলবোর্ড টাঙ্গিয়েছেন। এ ছাড়া সম্ভাব্য দলীয় কাউন্সিলরদের মন কাড়তে তাদের সাথে দেখা করছেন।
সাধারণ সম্পাদক পদপ্রার্থী মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের বর্তমান সাংগঠনিক সম্পাদক এনায়েত হোসেন নয়ন বলেন, আমরা ভাগ্যবান নিজেদের রাজনৈতিক অভিভাবক হিসেবে ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের মতো একজন নেতার ছায়াতলে থেকে রাজনীতি করতে পারছি। আমি দলের সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থী হয়েছি। আমি দলের দুঃসময়ে রাজপথে অগ্রভাগে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছি। ২০১৩-১৪ সালে বিএনপি-জামায়াতের জ্বালাও-পোড়াও কর্মকাণ্ড সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে প্রতিহত করেছি। ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন এমপির স্বপ্নের আধুনিক ও পরিকল্পিত মিরসরাই গঠনে কাজ করার পাশাপাশি তারুণ্যের অহঙ্কার আইটি বিশেষজ্ঞ ইঞ্জিনিয়ার মাহবুবুর রহমান রুহেলের ভিশন মাদকমুক্ত মিরসরাই ও দক্ষ জনশক্তি গঠনে সচেষ্ট থাকব।
অন্য সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী এ কে এম জাহাঙ্গীর ভূঁইয়া বলেন, প্রিয় নেতার নির্দেশে দীর্ঘ দিন ধরে রাজনীতির সাথে জড়িত রয়েছি। আগামীতেও প্রিয় নেতার আদর্শ বাস্তবায়ন ও তৃণমূলকে সংগঠিত করতে কাজ করব।
মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আতাউর রহমান বলেন, ‘সম্পূর্ণ গঠনতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের তৃণমূল কাউন্সিল অনুষ্ঠান আমরা শেষ করতে সক্ষম হয়েছি। উপজেলা কাউন্সিলেও তার ব্যত্যয় গড়বে না। আশা করছি আমাদের জননন্দিত নেতা ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের দিক নির্দেশনা অনুযায়ী আমরা দলকে একটি সুন্দর কমিটি উপহার দিতে পারব।’

 


আরো সংবাদ

দেশে কিছু ঘটলেই তার ওপর ভর করে বিএনপি : কাদের সাউথ এশিয়ান ল’ ইয়ার্স ফোরামের সুপ্রিম কোর্ট চাপ্টারের পরিচিতি সভা শ্রমিক ইউনিয়ন চাঁদা তুলে আঙুল ফুলে কলাগাছ ইলিয়াস কাঞ্চনের বিরুদ্ধে বিদ্বেষমূলক প্রচারণায় আসকের নিন্দা সোনারগাঁওয়ে শুটারগানসহ ১ ব্যক্তি আটক রাজধানীতে যুবলীগ নেতাকে তুলে নেয়ার অভিযোগ যৌন হয়রানির অভিযোগে টেনিস ফেডারেশনের সেক্রেটারি বহিষ্কার খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য প্রয়োজন ‘ডু অর ডাই’ আন্দোলন : গয়েশ্বর রায় পূবাইলে তারেক রহমানের জন্মদিন উদযাপিত চার জেলার ৮ কারখানাকে জরিমানা পরিবেশ অধিদফতরের দি স্টুডেন্টস ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশন ঢাকার ২০১৯ সালের বৃত্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত

সকল