১০ ডিসেম্বর ২০১৯

মাঠ সংস্কার উদ্বোধনে হাজী সেলিম অনুসারীদের হট্টগোল!

-

পুরান ঢাকার লালবাগের শহীদ হাজী আবদুল আলীম মাঠের সংস্কারকাজ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে চরম হট্টগোলের সৃষ্টি হয়েছে। স্থানীয় সংসদ সদস্য হাজী সেলিমকে যথাযথ সম্মান দেখোনো হয়নি অভিযোগ এনে তার অনুসারীরা এই হট্টগোলের সূচনা করে বলে অভিযোগ উঠেছে। গতকাল বেলা ৩টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত দফায় দফায় উত্তেজনা চলতে থাকে। পরে ঢাকা দক্ষিণ সিটি মেয়র সাঈদ খোকন ঘটনাস্থলে এসে পুলিশের সহায়তায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন।
স্থানীয়রা জানান, গতকাল ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকনের মাঠের সংস্কারকাজের উদ্বোধনের কথা ছিল। সে হিসেবে ২৬ নম্বর ওয়ার্ড থেকে সব ধরনের প্রস্তুতি নেয়া হয়। মাঠের ভেতরে বড় মঞ্চ নির্মাণ করে এর পেছনে এলইডি স্ক্রিন প্রজেক্টরের ব্যবস্থা করা হয়। বেলা ৩টায় ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী মোহাম্মদ সেলিম মাঠে প্রবেশ করেন। এ সময় ওই স্ক্রিনে তার ছবি না থাকায় তিনি ক্ষিপ্ত হন। এতে তার অনুসারীরাও ক্ষিপ্ত হয়ে মঞ্চে উঠে মাইক ফেলে দিয়ে বিভিন্ন বৈদ্যুতিক সরঞ্জামের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন। হাজী সেলিমের অনুসারীরা বলেন, এলাকার এমপি হিসেবে হাজী সেলিমকে যথাযথ সম্মান দেয়া হয়নি। আর সম্মান না দেয়ার পেছনে ২৬ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর হাসিবুর রহমানকে দায়ী করেন তারা।
একপর্যায়ে হাসিবুরের দিকে তেড়ে যান তারা। এ সময় হাসিবুরের অনুসারীরা এগিয়ে গেলে শুরু হয় হট্টগোল। দুইপক্ষই স্লেøাগান দিতে শুরু করে। একপর্যায়ে হাজী সেলিমের পক্ষে এক ব্যক্তি মাইকে ঘোষণা দেন যেহেতু ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্যকে যথাযথ সম্মান দেয়া হয়নি, তাই এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে এই অনুষ্ঠান বন্ধ করে দেয়া হলো। পরে আবার ঘোষণা দেয়া হয় যে, দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন হাজী সেলিমের সাথে কথা বলেছেন। অনুষ্ঠান শুরু হবে বলে ঘোষণা দেয়া হয়। এরপর কাউন্সিলর মাইকে আমন্ত্রিত অতিথিদের শুভেচ্ছা জানাতে শুরু করলে আবারো উত্তেজনা শুরু হয়। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। বিকেল ৪টায় মেয়র সাঈদ খোকন মাঠে উপস্থিত হন।


আরো সংবাদ