২২ আগস্ট ২০১৯

জামালপুরে মাদরাসা ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যা

জামালপুরে তুচ্ছ ঘটনায় কাথা কাটাকাটির জের ধরে এক মাদরাসা ছাত্রকে বটি ও দা দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে একই মাদরাসার অপর এক ছাত্র। নিহত মাদরাসা ছাত্রের নাম শাহাদৎ হোসেন সাদ (৮)। শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে সদর উপজেলার বাঁশচড়া ইউনিয়নের কাসারুপাড়া গ্রামে কাসারুপাড়া হাফিজিয়া মাদরাসার রান্নাঘরে এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে ওই মাদরাসার নবম শ্রেণির ছাত্র আবু রায়হানকে (১৫) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। নিহত শাহাদৎ হোসেন সাদ কাসারুপাড়া হাফিজিয়া মাদরাসার হেফজ বিভাগের ছাত্র এবং সদর উপজেলার ইটাইল ইউনিয়নের শৈলেরকান্দা গ্রামের মোহাম্মদ সুরুজ্জামানের ছেলে। অন্যদিকে গ্রেফতারকৃত আবু রায়হান সদর উপজেলার বাঁশচড়া ইউনিয়নের জামিরা গ্রামের খলিলুর রহমানের ছেলে।

স্থানীয় সূত্র ও পুলিশ জানায়, কাসারুপাড়া হাফিজিয়া মাদরাসার হেফজ বিভাগের ছাত্র শাহাদৎ হোসেন ও একই মাদরাসার নবম শ্রেণির ছাত্র আবু রায়হানের উপর রান্নার দায়িত্ব পড়ে। রান্না ঘরে তরকারি কাটার সময় দু’জনের মধ্যে কাথা কাটাকাটির একপর্যায়ে অভিযুক্ত আবু রায়হান বটি ও দা দিয়ে শাহাদৎ হোসেন সাদের মাথায় আঘাত করলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনার পর আবু রায়হান দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করলে স্থানীয় লোকজন তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

এ ব্যাপারে জামালপুর সদর থানার ওসি মোহাম্মদ সালেমুজ্জামান জানান, মাদরাসা ছাত্রকে হত্যার অভিযোগে আবু রায়হানকে গ্রেফতার করা হয়েছে। নিহত মাদরাসা ছাত্র শাহাদৎ হোসেন সাদের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য জামালপুর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।


আরো সংবাদ