১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

চকলেটের লোভ দেখিয়ে ৪ বছরের শিশুকে গণধর্ষণ : অভিযুক্ত ২ বন্ধু

ছোট্ট শিশুটি ঠিকমতো কথাও বলতে পারে না। বয়স মাত্র চার বছর। আর এই বয়সেই তাকে কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে পড়তে হয়েছে। দুই নরপশুর লালসার শিকার হয়ে শিশুটি এখন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি। ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার ২নং গৌরীপুর ইউনিয়নের গাভিশীমুল গ্রামে।

এদিকে চার বছরের শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে অভিযুক্ত দুই ধর্ষকের নামে বুধবার রাতে গৌরীপুর থানায় মামলা দায়ের করেছেন (মামলা নং- ১৫, তারিখ ১১/০৯/২০১৯) ভুক্তভোগী শিশুর বাবা। পেশায় তিনি একজন রিকশাচালক। অভিযুক্ত দুই ধর্ষক কিশোরের নাম ইসমাইল হোসেন (১৪) ও রাকিব (১৩)। অভিযুক্ত ধর্ষক ইসমাইল হোসেন উপজেলার গৌরীপুর ইউনিয়নের গাভিশীমুল গ্রামের তারা মিয়ার ছেলে ও ধর্ষক রাকিব একই এলাকার মো: হারুন মিয়ার ছেলে।

জানা যায়, পারিবারিক অভাব অনটনের কারণে শিশুটির বাবা ও মা দুজনেই ঢাকায় বসবাস করেন। বাবা রিকশা চালিয়ে ও মা গৃহপরিচারিকার কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। ছোট্ট এই শিশুটি তার দাদীর সাথে উপজেলার গৌরীপুর ইউনিয়নের গাভিশীমুল গ্রামে বসবাস করতো। গত ৯ সেপ্টেম্বর সোমবার বিকেল সাড়ে চারটার দিকে চকলেট দেয়ার কথা বলে ফুলসিয়ে পাশের জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষণ করে প্রতিবেশী দুই কিশোর ইসমাইল হোসেন ও রাকিব। একপর্যায়ে শিশুটির চিৎকারে প্রতিবেশী লোকজন এগিয়ে আসলে দুই ধর্ষক ইসমাইল ও রাকিব পালিয়ে যায়। পরে রক্তাক্ত অবস্থায় শিশুটিকে উদ্ধার করে প্রথমে গৌরীপুর উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসাপাতালে প্রেরণ করেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে শিশুটির বাবা দৈনিক নয়া দিগন্তকে জানান, আমি স্ত্রী ও সাত বছরের এক শিশু সন্তানকে নিয়ে ঢাকায় থাকি। মেয়েটি আমার মায়ের কাছে গ্রামের বাড়িতে থাকে। মেয়ের এই অবস্থা শুনে গত মঙ্গলবার আমরা গাভিশীমুল গ্রামের বাড়িতে এসে শুনি মেয়ের চিকিৎসার জন্য গ্রাম্য মাতাব্বরদের মাধ্যমে চার হাজার টাকা দিয়েছে দুই ধর্ষকের পরিবারের লোকজন। পরে আমি ওই টাকা মাতাব্বর জুয়েলের কাছে ফেরৎ দিয়ে বিচারের দাবিতে থানায় মামলা করেছি।

তিনি আরো বলেন, তার মেয়ে এখন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের চিকিৎসাধীন আছে।

গৌরীপুর থানার ওসি (তদন্ত) মো: গোলাম মাওলা মামলার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, অভিযুক্ত দুই ধর্ষককে গ্রেফতারে অভিযান চলছে। ভুক্তভোগী শিশুর ডাক্তারি পরীক্ষার ব্যবস্থা করা হচ্ছে।


আরো সংবাদ

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ ১২ বছর আগে শেষ ম্যাচ খেলেছেন, অবসরের ঘোষণা দিলেন আজ গণদলের মহাসচিবের পিতার ইন্তেকালে শোক অনলাইনে ভুল তথ্য শিশুদের জন্য বড় হুমকিগুলোর অন্যতম : ইউনিসেফ জাপানের কাছে বিধ্বস্ত বাংলাদেশ জামালপুরে আ’লীগ-যুবলীগের ৩ জনকে ভ্রাম্যমান আদালতে সাজা ২০-২১ ডিসেম্বর আ’লীগের জাতীয় সম্মেলনের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা হুয়াওয়ে নিয়ে এলো বিশ্বের সবচেয়ে দ্রুত গতিসম্পন্ন এআই ট্রেনিং ক্লাস্টার এটলাস ৯০০ সৌদি আরবের হাজার কোটি ডলারের প্রতিরক্ষাব্যবস্থা কি ব্যর্থ হচ্ছে মালালার বিরুদ্ধে হঠাৎ কেন আক্রমণ ভারতীয়দের? অভিযোগপত্র গ্রহণ, ৯ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা

সকল