২৬ জানুয়ারি ২০২০

শাজাহান খানকে ইলিয়াস কাঞ্চনের আল্টিমেটাম

‘ক্ষমা না চাইলে ব্যবস্থা’
সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন ইলিয়াস কাঞ্চন - ছবি : নয়া দিগন্ত

সাবেক মন্ত্রী ও পরিবহন নেতা শাজাহান খানকে ২৪ ঘন্টার আল্টিমেটাম দিয়ে ক্ষমা চাওয়ার আহবান জানিয়েছেন নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের প্রধান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন। অন্যথায় শাজাহান খানের বিরুদ্ধে মামলা করারও হুশিয়ারি দিয়েছেন তিনি।

বুধবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে এক সাংবাদিক সম্মেলনে ইলিয়াস কাঞ্চন এই হুশিয়ারি দেন। ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, নিরাপদ সড়ক আন্দোলন নিয়ে শাহজাহান খানরা বরাবরই রাজনীতি করে আসছেন। আমি যখন নিরাপদ সড়ক আন্দোলন নিয়ে মানুষকে সচেতন করতে কাজ শুরু করেছি তখন তিনি আমার এবং আমার পরিবারকে নিয়েও বিষোদাগার করছেন। কয়েকদিন আগে আমি বিদেশে থাকাকালে(৮ ডিসেম্বর) শাজাহার খান নারায়ণগঞ্জে শ্রমিকদের একটি অনুষ্ঠানে আমাকে ও আমার পরিবার নিয়ে অশালীন কথা বলেছেন, যা রীতিমতো মানহানীকর।

ইলিয়াস কাঞ্চনবলেন, ঐ দিনই আমার অবর্তমানে আমাদের সংগঠনের পক্ষ থেকে বিবৃতি দিয়ে শাজাহান খানকে তার বক্তব্য প্রত্যাহার করে ক্ষমা চাইতে ২৪ ঘণ্টার সময় বেঁধে দেয়া হয়; কিন্তু তিনি তা করেননি। তাই আজ আমি ব্যক্তিগতভাবে আবারো তাকে ২৪ ঘন্টা সময় দিয়ে তার বক্তব্য প্রত্যাহার করে জাতির কাছে ক্ষমা চাওয়ার আহবান জানাচ্ছি। অন্যথায় আমি তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হবো।

ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, সারা দেশে যখন নিরাপদ সড়ক আন্দোলন জোরদার হচ্ছে ঠিক তখনি শাজাহান খানরা পিছন থেকে ছুরি মারতে চাইছেন। তারা ব্যক্তিস্বার্থে দেশের ও নিরাপদ সড়কের আন্দোলনকে বাধাগ্রস্থ করতে চাইছে।

ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, শাজাহান খান সাহেব আমাকে ও আমার পরিবারের সদস্যদের নিয়েও দুর্নীতি আর নানা অনিয়মের কথা বলেছেন। এখন আমি আজকের এই সাংবাদিক সম্মেলন থেকে তাকে চ্যালেঞ্জ দিয়ে বলতে চাই- যেসব অভিযোগ তিনি তুলেছেন সেগুলো প্রমাণের দায়িত্বও তাকেই নিতে হবে। অন্যথায় আমি আইনের আশ্রয় নিতে বাধ্য হবো।

ইলিয়াস কাঞ্চন আরো বলেন , মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যেখানে সড়ক আইন ২০১৮ বাস্তবায়নে আন্তরিক- সেখানে শাজাহান খানরা এই আইনটি নিয়ে শ্রমিকদের ব্যবহার করে ঘোলা পানিতে মাছ শিকারের অপচেষ্টা করছেন।


আরো সংবাদ