২১ নভেম্বর ২০১৯

মানবতাবিরোধী অপরাধ : বাদীর বয়স ৩ বছর,আসামির বয়স ১২!

-

ঠাকুরগাঁওয়ে মানবতাবিরোধী অপরাধে আবেদ হোসেন নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা করেছেন নুরুল হক ওরফে গাঠি নামের এক ব্যক্তি। যার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে সেই আবেদ হোসেনের মুক্তিযুদ্ধের সময় বয়স ছিল ১২ বছর। অন্যদিকে বাদী নুরুল হক ওরফে গাঠির বয়স ছিল তখন ৩ বছর। 

শনিবার দুপুরে ঠাকুরগাঁও প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে এ তথ্য জানান অভিযুক্ত আবেদ হোসেনের ছোট ভাই একরাম আলী।

লিখিত বক্তব্যে একরাম বলেন, ‘১৯৭১ সালে আমার বড়ভাই আবেদ হোসেন ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র ছিল। তার জন্ম ৯ নভেম্বর ১৯৫৮ সালে। সে অনুযায়ী মুক্তিযুদ্ধের সময় তার বয়স ছিল মাত্র ১২ বছর। বারো বছরের একটি ছেলে কিভাবে যুদ্ধাপরাধ বা মানবতাবিরাধী অপরাধ করতে পারে? পক্ষান্তরে আবেদ হোসেনের বিরুদ্ধে যিনি মানবতা বিরোধী অপরাধের অভিযোগে মামলা করেছেন, মুক্তিযুদ্ধের সময় তার বয়স ছিল মাত্র তিন বছর!’

তিনি আরো বলেন, ‘আমার ভাই মুক্তিযুদ্ধের সময় কোন প্রকার অপরাধের সাথে জড়িত ছিল না। জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যক্তি সাহাবুদ্দীন আহাম্মেদ ও তার ভাই সালাউদ্দীন আহাম্মেদ এর বিরুদ্ধে মামলা করায় (মামলা নং-৪/২০১৬) তারা আমার ভাইকে মারধর করে ও তার ঘর-বাড়ি জ্বালিয়ে দেয়। এ ঘটনায় ১০ জনকে আসামি করে আরো একটি মামলা (সি.আর-৩৮/২০১৯) করেন আবেদ হোসেন। এতে আরো বেশি ক্ষিপ্ত হয় সাহাবুদ্দীন আহাম্মেদ ও তার ভাই সালাউদ্দীনসহ মামলার বিবাদীরা। তাদের এক আত্মীয় সরকারের উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তা হওয়ায় তার সহযোগিতায় তারা নুরুল হক ওরফে গাঠি কে দিয়ে আবেদ হোসেনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করান (আইসিটি-বিডি আইসিটি-১, মিসকেস নং-০৩/২০১৯)। গত ২৫ জুন আবেদ হোসেনকে তার নিজ বাড়ি থেকে আটক করা হয়। বর্তমানে সে কেরানীগঞ্জ কেন্দ্রীয় কারাগারে রয়েছে।

সংবাদ সম্মেললে একরাম আলী আরো জানান, ‘আমরা যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালে গিয়েও আমার ভাই আবেদ হোসেনের বিরুদ্ধে মামলার কোন নথি বা কাগজপত্র পাইনি। আমরা চাই সুষ্ঠুভাবে এ মামলার তদন্ত করা হোক। তাহলে আমার ভাই আবেদ হোসেন এ মামলা থেকে রক্ষা পাবে। ’

সংবাদ আরো বক্তব্য রাখেন-বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার ৪ নং বড় পলাশবাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম। তিনি দাবি করেন, ‘আবেদ হোসেন সম্পূর্ণ নিরপরাধ। তার বিরুদ্ধে যে মানবতা বিরোধী অভিযোগে মামলা করা হয়েছে তা ভিত্তিহীন। সুষ্ঠু তদন্ত করলে তা প্রমানিত হবে।’

অভিযুক্ত আবেদ হোসেন ঠাকুরগাঁও জেলার বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার ৪ নং বড় পলাশবাড়ি ইউনিয়নের বোবরা গ্রামের মৃত আবু তৈয়বের ছেলে।


আরো সংবাদ