২৬ মার্চ ২০১৯

অশোক

-

অশোক ঔষধি গুণে ভরা একটি গাছের নাম। মাঝারি আকারের বৃক্ষ। ফুল সুন্দর। অশোক দুষ্প্রাপ্য নয়।
ঢাকার বলধা গার্ডেন, রমনা পার্ক ও বোটানিক্যাল গার্ডেনে অশোক আছে। অশোকের বৈজ্ঞানিক নাম ঝধৎধপধ রহফরপধ. সুন্দর এই ফুলটির আরো দু’টি ভ্যারাইটি স্বর্ণ অশোক ও রাজ অশোক।
অশোক গাছ ছয় থেকে সাত মিটার উঁচু হয়। এ গাছ সারা বছর ঘন সবুজ পাতায় ছেয়ে থাকে। পাতা দেখতে অনেকটা জাম পাতার মতো লম্বাটে। কচি পাতা তামাটে বর্ণের। গাছের আগায় একগুচ্ছ কচি পাতা মরা পাতার মতো ঝুলে থাকে। তামাটে সেই পাতায় আস্তে আস্তে সবুজ রঙ ধরে এবং শক্ত হয়ে সাধারণ পাতায় পরিণত হয়। বসন্তে প্রতিটি ডালের আগায় ফুল ফোটে। অনেক গাছে ফুল ফোটে গাছের গোড়া পর্যন্ত। ছোট ছোট তারার মতো ফুল ফোটে একসাথে গুচ্ছাকারে। ফুল প্রথমে ফোটে হলদে রঙের। এক দিন পর সেই ফুল লাল রঙ ধারণ করে। এক গুচ্ছে কিছু ফুল হলুদ আর কিছু ফুল লাল বলে আগুনের মতো বর্ণ মনে হয়। দূর থেকে লাল ফুল দেখে মনে হয় গাছে আগুন লেগেছে। অশোকের গাছে ফুল থাকে বর্ষা পর্যন্ত। অশোকের ফল লম্বা ও চ্যাপটা বড় শিমের মতো। বীজ বড় আকারের। বীজ থেকেই সাধারণত চারা জন্মে। গাছে ফুল আসতে চার-পাঁচ বছর সময় লাগে। অশোকের বাকলে ভেষজ গুণ আছে।

 


আরো সংবাদ