১৮ আগস্ট ২০১৯

মুসলমানদের নিশ্চিহ্ন করতে নরেন্দ্র মোদিকে ভোট দিন : বিজেপি

বিজেপি নেতা রঞ্জিত বাহাদুর শ্রীবাস্তব - সংগৃহীত

ভারত থেকে মুসলমানদের নিশ্চিহ্ন করতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ভোট দেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন বিজেপি নেতা রঞ্জিত বাহাদুর শ্রীবাস্তব। ভারতের উত্তর প্রদেশের বিজেপি নেতা রঞ্জিত বাহাদুর শ্রীবাস্তব বলেছেন, মুসলমানদের ভারত থেকে নিশ্চিহ্ন করতে চাইলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ভোট দিন। লোকসভা নির্বাচন উপলক্ষে গত বৃহস্পতিবার উত্তর প্রদেশের বারাবাঁকিতে এক নির্বাচনী সমাবেশে ভাষণ দেয়ার সময় তিনি ওই মন্তব্য করেন।

বর্ণবাদী ও কট্টর হিন্দু মৌলবাদী এ নেতা আরো বলেন, গত পাঁচ বছরে মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষের মনোবল ভেঙে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সে জন্য আপনারা যদি মুসলমানদের ধ্বংস করতে চান তাহলে নরেন্দ্র মোদিকে ভোট দিন। দেশ ভাগের পর থেকে ভারতে মুসলিমদের জনসংখ্যা দ্রুতগতিতে বেড়েছে। এবার ভোটদানের মাধ্যমে তারা এ দেশের ক্ষমতা কুক্ষিগত করতে চাচ্ছে। এখনই না আটকানো গেলে তারা একদিন তাতে সফল হবে।

বিজেপির ওই নেতা বলেন, লোকসভা নির্বাচনের পরে চীন থেকে দাড়ি কাটার মেশিন আনা হবে। সেই মেশিন দিয়ে ১০-১২ হাজার মুসলমানের দাড়ি শেভ করা হবে। এরপর তাদেরকে জোর করে হিন্দুধর্ম গ্রহণ করতে বাধ্য করা হবে। নরেন্দ্র মোদি বা বিজেপিকে ভোট না দিলে এর বিপরীতটাও হতে পারে। সে জন্য ওই ধরনের অবস্থা থেকে নিজেদের রক্ষা করতে এবং মুসলিমদের ধ্বংস করতে মোদি ও বিজেপিকে ভোট দিন।

সাত দফার লোকসভা নির্বাচন শুরু হয়েছে গত ১২ এপ্রিল। দ্বিতীয় দফায় ১৮ এপ্রিল ভোট হয়েছে। এখন বাকি আর পাঁচ দফার ভোট। তার মধ্যেই হিন্দু জাতীয়তাবাদী ক্ষমতাসীন দল বিজেপির সভাপতি অমিত শাহ ও দলটির বেশ কিছু নেতা মুসলিমদের আক্রমণ করে বক্তব্য দিচ্ছেন।

এদিকে বিজেপি নেতার ওই মন্তব্য প্রসঙ্গে শনিবার পশ্চিমবঙ্গের রাজধানী কলকাতার যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আব্দুল মতিন বলেন, গোলওয়ালকর, হেডগেওয়ারের বইগুলোতে স্পষ্ট লেখা আছে যে মুসলিম, কমিউনিস্ট, খ্রিষ্টানরা জাতির অংশ নয় এবং তাদের ধ্বংসের কথা অনেক আগেই বলা হয়েছে। এটা তারা এখন নতুন ভাষায় বলছে।

শুধু রঞ্জিত নন বেফাঁস মন্তব্য করা বিজেপি নেতাদের তালিকায় আছেন সবচেয়ে বেশি লোকসভা আসন থাকা উত্তর প্রদেশের মুখমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। তাছাড়া বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ সম্প্রতি এক নির্বাচনী সভায় বলেছেন, ‘বিজেপি আবারো ক্ষমতায় আসলে মুসলিম অভিবাসীদের বঙ্গোপসাগরে ছুড়ে মারা হবে।’

‘মোদি’ ওয়েব সিরিজ বন্ধের নির্দেশ ইসির : এদিকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ওপর বানানো ‘মোদি’ নামের ওয়েব সিরিজটি বন্ধ করে দিয়েছে ভারতের নির্বাচন কমিশন। ‘মোদি’ নামে ওই ওয়েব সিরিজটি এ মাসের প্রথম থেকেই শুরু হয়েছিল ‘এরোস নাও’ ওয়েবসাইটে। সেটি সম্প্রচারের জন্য সরকারিভাবে অনুমতি নেয়া হয়নি বলে নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ করেছিলেন দিল্লির প্রধান নির্বাচনী কর্মকর্তা।

সে অভিযোগের প্রেক্ষিতেই এ নিষেধাজ্ঞা জারি করল কমিশন। শনিবার কমিশনের প্রিন্সিপাল সেক্রেটারি নরেন্দ্র বুটোলিয়াকে লেখা চিঠিতে দিল্লির প্রধান নির্বাচনী কর্মকর্তা অভিযোগ করেন, ওই সম্প্রচারের আগে মিডিয়া সার্টিফিকেশন অ্যান্ড মনিটরিং কমিটির (এমসিএমসি) অনুমতি নেয়ার প্রয়োজন ছিল, কিন্তু তা নেয়া হয়নি। তার পরই কমিশন এ পদক্ষেপ নিলো।

লোকসভা নির্বাচনের ভোটের তারিখ ঘোষণার পরই রাজনৈতিক নেতাদের নিয়ে বানানো বায়োপিকের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করে ভারতের নির্বাচন কমিশন। এর আগে প্রধানমন্ত্রী মোদিকে নিয়ে বানানো একটি চলচ্চিত্রের মুক্তিও আটকে দিয়েছে কমিশন।


আরো সংবাদ