১৮ নভেম্বর ২০১৯

লগি-বৈঠার তাণ্ডবের বিচার বাংলার মাটিতে হবেই : এড. জুবায়ের

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদের সদস্য ও সিলেট মহানগর জামায়াতের আমীর এডভোকেট এহসানুল মাহবুব জুবায়ের বলেছেন, ২০০৬ সালের ২৮ অক্টোবর বাংলাদেশের রাজনীতির ইতিহাসে এক কলঙ্কজনক অধ্যায়ের সূচনা হয়।

সেই দিন আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন ১৪ দলীয় জোট রাজধানীর পুরান পল্টনসহ সারাদেশে জামায়াত-শিবিরের উপরে পরিকল্পিতভাবে তাণ্ডবলীলা চালায়। তারা প্রকাশ্য দিবালোকে লগি-বৈঠা দিয়ে সাপের মত পিটিয়ে মানুষকে হত্যা করে লাশের ওপর নৃত্য করেছে। তাদের নৃশংসতার হাত থেকে সম্প্রীতির সিলেটও রক্ষা পায়নি।

১৩ বছর পেরিয়ে গেলেও ক্ষমতাসীন সরকার পল্টন ট্র্যাজেডির এই জঘন্য মানবতা বিরোধী অপরাধের বিচার করেনি। বরং রাজনৈতিক বিবেচনায় নৃশংস হত্যাকাণ্ডের মামলা সমূহ প্রত্যাহার করে নিয়েছে। আজ হোক কাল হোক এই নারকীয় তাণ্ডবের সাথে জড়িতদের বিচার বাংলার মাটিতে হবেই।

ভয়াল ২৮ অক্টোবরের শহীদদের রক্ত বৃথা যেতে পারেনা। শহীদের রক্তস্নাত বাংলাদেশের সবুজ জমিনে ইনসাফ ভিত্তিক সমাজ বিনির্মানের মাধ্যমে লগি-বৈঠার তাণ্ডবে শাহাদাতবরনকারী ভাইদের রক্তের বদলা নেয়া হবে, ইনশাআল্লাহ।

তিনি সোমবার কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে সিলেট মহানগর জামায়াতের উদ্যোগে ভয়াল ২৮ অক্টোবর উপলক্ষে লগি-বৈঠার তাণ্ডবে শাহাদাৎবরণকারী শহীদদের স্মরণে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে সভাপতির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন।

মহানগর সেক্রেটারী মাওলানা সোহেল আহমদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে বক্তব্য রাখেন, মহানগর নায়েবে আমীর মো: ফখরুল ইসলাম, সহকারী সেক্রেটারী মো: শাহজাহান আলী, জামায়াত নেতা মাওলানা আব্দুল মুকিত, রফিকুল ইসলাম ও এখলাছুর রহমান প্রমূখ। সভা শেষে শহীদদের মাগফেরাত কামনা এবং দেশ জাতির মঙ্গল কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।


আরো সংবাদ